শুক্রবার ১৮ অক্টোবর ২০১৯ ৩রা কার্তিক, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

জসিমের মৃত্যুবার্ষিকীতে এফডিসিতে দোয়া মাহফিল

দেশীয় চলচ্চিত্রের নিবেদিত প্রাণ ছিলেন বীর মুক্তিযোদ্ধা ও অভিনেতা ‘চিত্রনায়ক জসিম’। খলনায়ক হিসেবে অভিনয় জীবন শুরু করেছিলেন। আজমল হুদা মিঠুর ‘দোস্ত দুশমন’ সিনেমা দিয়ে বাংলা চলচ্চিত্রে জসিমের আবির্ভাব হয়। তিনি দুশমন, গরীবের ওস্তাদ, টাইগার, সবুজ সাথী, জিদ্দী, স্বামী-স্ত্রীর যুদ্ধ, দোস্ত দুশমন ছাড়াও প্রায় ২ শতাধিক চলচিত্রে অভিনয় করেছেন। ১৯৯৮ সালের আজকের এই দিনে মস্তিষ্কে রক্তক্ষরণে মৃত্যুবরণ করেন জসিম।

নন্দিত এ অভিনেতার ২১তম মৃত্যুবার্ষিকী আজ। তার মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে শিল্পী সমিতির পক্ষ থেকে কোরআন খতম ও দোয়া মাহফিলের আয়োজন করা হয়েছে বলে জানান সমিতির সাধারণ সম্পাদক জায়েদ খান।

জসিমের আসল নাম আবদুল খায়ের জসিম উদ্দিন। জন্ম ১৯৫০ সালের ১৪ আগস্ট ঢাকার কেরানীগঞ্জে। লেখাপড়া করেন বিএ পর্যন্ত। ১৯৭১ সালে মহান স্বাধীনতা যুদ্ধে একজন সৈনিক হিসেবে তিনি পাকিস্তানি হানাদার বাহিনীর বিরুদ্ধে লড়াই করেছিলেন। ১৯৭৩ থেকে তার অভিনয় জীবন শুরু। মৃত্যুর আগ পর্যন্ত তিনি দাপটের সঙ্গে অভিনয় করে গেছেন। 

দেওয়ান নজরুল পরিচালিত ‘দোস্ত দুশমন’ ছবির মাধ্যমে তিনি ব্যাপক পরিচিতি পান। ‘দোস্ত দুশমন’ হিন্দি ‘শোলে’ ছবির রিমেক। এখানে জসিম গব্বর সিংয়ের খলনায়ক চরিত্রটি রূপদান করে ব্যাপক আলোচিত হন। 

আশির দশকের প্রায় সকল জনপ্রিয় নায়িকার বিপরীতেই অভিনয় করেছেন এই অ্যাকশন অভিনেতা। তবে শাবানা-রোজিনার সঙ্গে তার জুটিই সবচেয়ে দর্শকপ্রিয়তা অর্জন করেছিল।