সোমবার ১৪ অক্টোবর ২০১৯ ২৯শে আশ্বিন, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

দিনাজপুরের নবাবগঞ্জে আশুড়ার বিলে ভ্রমনে আসা ৩ শিক্ষার্থীর নৌকা ডুবিতে মৃত্যু

নবাবগঞ্জ (দিনাজপুর) থেকে এম. এ সাজেদুল ইসলাম(সাগর)ঃ উত্তর জণপদের আশুড়ার বিল পানিতে ভরে গেছে। আর বিলে দেশীয় শাপলা, পদ্মসহ বিভিন্ন প্রজাতির ফুল ফুটে পর্যটকদের দৃষ্টি আকর্ষন করেছে। এ মৌসুমে দেশের বিভিন্ন অঞ্চল থেকে ভ্রমন পিপাসুরা ওই বিলে শেখ ফজিলাতুন নেছা কাঠের সেতু, জাতীয় উদ্যানের শাল বাগানসহ ঝাঁকে ঝাঁকে উড়ে আসা পাখির কলতানে মুখরিত হয়ে আশুড়ার বিলটি। শনিবার দুপুরে দিনাজপুরের নবাবগঞ্জে আশুড়ার বিলে ভ্রমনে আসা দিনাজপুর হাজী মোহাম্মদ দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের ২ শিক্ষার্থী ও দিনাজপুর সরকারী মহিলা কলেজের ১ শিক্ষার্থী পানিতে ডুবে মর্মান্তিক মৃত্যুর ঘটনা ঘটেছে। জাতীয় উদ্যান ও বিল রক্ষা কমিটির সভাপতি মোঃ মাহবুব আলম জানান- প্রতিদিনের ন্যায় শনিবার দুপুরে হাবিপ্রবি’এর ৫ জন শিক্ষার্থী বিল দেখতে আসে। এক পর্যায়ে নৌকার মাঝি ছাড়ায় ৫ জন শিক্ষার্থী নৌকা নিয়ে বিলের মাঝপথে গিয়ে নৌকা ডুবে পানিতে পড়ে যায় এবং ওই ৫ শিক্ষার্থী মধ্যে কেউই সাতার জানতেন না। এ সময় এলাকাবাসী, নবাবগঞ্জ থানা পুলিশ ও বন বিভাগের প্রহরীরা পানিতে পড়া ৫ শিক্ষার্থীকে উদ্ধার করে নবাবগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্যকমপ্লেক্সে উন্নত চিকিৎসার জন্য নিয়ে আসে। চিকিৎসাধীন অবস্থায় ৫ জনের মধ্যে হাবিপ্রবি’র শিক্ষার্থী রাফিদ, হাসনাত দিপ্ত ও সরকারি মহিলা কলেজের শিক্ষার্থী ফারিহা মমি’র মৃত্যু হয় এবং হাবিপ্রবি’র বেঁচে যাওয়া ২ শিক্ষার্থী অন্ত মিয়া ও মনোয়ার হোসেনকে উন্নত চিকিৎসার জন্য এম.আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতাল, দিনাজপুরে রেফার্ড করা হয়েছে বলে তথ্যটি নিশ্চিত করেছেন উপজেলা স্বাস্থ্যকমপ্লেক্সের স্বাস্থ্য প্রশাসক (টিএইচও) খায়রুল ইসলাম তপন। এ বিষয়ে নবাবগঞ্জ থানায় যোগাযোগ করা হলে অফিসার ইনচার্জ (ওসি) সুব্রত কুমার সরকার জানান- এ ঘটনায় নবাবগঞ্জ থানায় একটি সাধারণ ডাইরী হয়েছে। এ বিষয়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ মশিউর রহমানের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান- সংবাদ পেয়েই তাদের উদ্ধার করে স্বাস্থ্যকমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে তবে, ঘটনাটি দুঃখজনক। তিনি শোকাহত পরিবারের প্রতি সমবেদনা জ্ঞাপন করেছেন। এছাড়াও পরবর্তীতে মাঝি ছাড়া যেন কেউ নৌকা ভ্রমন না করে সে বিষয়ে কড়া নির্দেশ দেন। এ ঘটনায় দিনাজপুর-৬ আসনের সংসদ সদস্য শিবলী সাদিকের সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান- বিশ্ববিদ্যালয়ের ৩ জন শিক্ষার্থীর মৃত্যু বেদনাদায়ক। ভ্রমনে আসা পর্যটকদের সার্বিক নিরাপত্তা লাইফ জ্যাকেট পরিধান করে মাঝি সাথে নিয়ে নৌকা ভ্রমন করতে প্রশাসনকে নির্দেশ দিয়েছেন।