বুধবার ১৯ ডিসেম্বর ২০১৮ ৫ই পৌষ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

দিনাজপুর শহর আওয়ামীলীগের সভাপতি আনোয়ারুল ইসলামের জানাজা ও দাফন সম্পন্ন ॥ সর্বস্তরের মানুষের শ্রদ্ধা নিবেদন

মাহবুবুল হক খান, দিনাজপুর প্রতিনিধি ॥ সর্বস্তরের মানুষের শ্রদ্ধা ও ভালবাসায় সিক্ত হলেন বিশিষ্ট রাজনীতিবিদ, ব্যবসায়ী ও সমাজসেবক দিনাজপুর শহর আওয়ামী লীগের সভাপতি এবং দিনাজপুর চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রি’র সাবেক সিনিয়র সহ-সভাপতি মোঃ. আনোয়ারুল ইসলাম। শ্রদ্ধা নিবেদন ও জানাজা শেষে তাঁকে শেখ জাহাঙ্গীর গোরস্থানে দাফন করা হয়।

বুধবার (১৪ নভেম্বর) সকালে দিনাজপুর গোর-এ-শহীদ বড়ময়দানে অবস্থিত শহীদ মিনার প্রাঙ্গণে আনোয়ারুল ইসলাম’র মহদেহ আনা হয়। সেখানে জাতীয় সংসদের হুইপ ইকবালুর রহিম এমপি ফুলের তোড়া দিয়ে তাঁকে শ্রদ্ধা জানান। এছাড়া জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আজিজুল ইমাম চৌধুরী, শহর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এসএম খালেকুজ্জামমান রাজু, সদর উপজেলা আওয়ামী লীগৈর সভাপতি ইমদাদ সরকার ও সাধারণ সম্পাদক বিশ্বজিৎ ঘোষ কাঞ্চনসহ আওয়ামীলীগ ও আওয়ামীলীগের অন্যান্য অঙ্গসংগঠনের নেতৃবৃন্দ, বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের নেতাকর্মী, দিনাজপুর চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রি’র নেতৃবৃন্দ, ব্যবসায়ী নেতৃবৃন্দ ও সমাজের সর্বস্তরের মানুষ ফুলের তোড়া দিয়ে তাঁকে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন।

শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে বাদ জোহর মরহুমের জানাজার নামাজ অনুষ্ঠিত হয়। জানাজার নামাজে জাতীয় সংসদের হুইপ ইকবালুর রহিম এমপি, দিনাজপুর জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আজিজুল ইমাম চৌধুরীসহ আওয়ামী লীগ ও আওয়ামীলীগের বিভিন্ন অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মী, বিএনপি, জাতীয় পার্টিসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠনের নেতাকর্মী, দিনাজপুর চেম্বারের নেতৃবৃন্দ, সরকারী-বেসরকারী দপ্তরের কর্মকর্তা-কর্মচারী, সাংবাদিক, মরহুমের পরিবারের সদস্যবর্গ ও সমাজের সর্বস্তরের বিপুল সংখ্যক মানুষ অংশগ্রহণ করেন।

এদিকে বিশিষ্ট ব্যবসায়ী, রাজনীতিবিদ ও সমাজসেবক মরহুম আনোয়ারুল ইসলাম’র প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে বুধবার সকাল থেকে দুপুর পর্যন্ত দিনাজপুর শহরের সকল প্রকার দোকান-পাট ও ব্যবসা প্রতিষ্ঠান বন্ধ রাখা হয়।

উল্লেখ্য, গত ১১ নভেম্বর রবিবার দুপুর আনুমানিক সাড়ে ১২টায় ভারতের দিল্লীর একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি ইন্তিকাল করেন। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৫৬ বছর। তিনি মাতা, স্ত্রী, এক পুত্র, এক কন্যা সন্তানসহ অসংখ্য আত্মীয়-স্বজন, বন্ধু-বান্ধব ও রাজনৈতিক সহকর্মী রেখে গেছেন।

তাঁর মৃত্যুতে বিভিন্ন মহল গভীর শোক প্রকাশ করেছেন। শোক বার্তায় মরহুমের রুহের মাগফিরাত ও শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানানো হয়।