বুধবার ১ এপ্রিল ২০২০ ১৮ই চৈত্র, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

দিল্লির জামিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ে নাগরিকত্ব আইনবিরোধী বিক্ষোভে গুলি

ভারতের রাজধানী দিল্লির জামিয়া মিলিয়া ইসলামিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ে সংশোধিক নাগরিকত্ব আইন (সিএএ) বিরোধী বিক্ষোভে ফের গুলি করা হয়েছে। রবিবার রাতের এ হামলায় কেউ আহত হয়নি। খবর এনডিটিভির। এ নিয়ে গত চার দিনে দিল্লিতে সিএএ-বিরোধী বিক্ষোভে তৃতীয়বারের মতো গুলি করা হলো।

জামিয়া কোর্ডিনেশন কমিটি জানিয়েছে, দুই সন্দেহভাজন, তাদের মধ্যে একজন লাল জ্যাকেট পরিহিত, স্কুটারে করে এসে বিশ্ববিদ্যালয়টির ৫ নং গেটের বাইরে থেকে গুলি করে।

গত ৩০ জানুয়ারি (বৃহস্পতিবার) দিল্লির জামিয়া মিলিয়া ইসলামিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের বিক্ষোভে পুলিশের উপস্থিতিতে গুলিবর্ষণ করে এক উগ্র হিন্দুত্ববাদী কিশোর। পরে ১ ফেব্রুয়ারি (শনিবার) শাহিনবাগে চলমান বিক্ষোভে গুলি চালায় এক বন্দুকধারী। সর্বশেষ রবিবার রাতে জামিয়া মিলিয়া ইসলামিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের ৫ নম্বর গেটের বাইরে গুলি বর্ষণের ঘটনা ঘটে।

পুলিশ জানিয়েছে, শাহিনবাগের দুই কিলোমিটার দূরে গুলিবর্ষণের ঘটনা ঘটে। ঊর্ধ্বতন পুলিশ কর্মকর্তা জগদীশ যাদব বলেন, সাক্ষ্য রেকর্ড করা হয়েছে। এর ভিত্তিতে মামলা নথিবদ্ধ হয়েছে। একটি দল ঘটনাস্থলে গিয়ে পাঁচ ও সাত নম্বর গেটের সিসিটিভি ফুটেজ সংগ্রহ করবে। তার ভিত্তিতে পাওয়া তথ্যও নথিবদ্ধ করা হবে। এসবের ভিত্তিতে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

প্রসঙ্গত, যুক্তরাজ্যভিত্তিক মানবাধিকার সংস্থা অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল এক বিবৃতিতে বলেছে, প্রতিবাদীদের জন্য ভারত বিপজ্জনক হয়ে উঠছে।

শনিবারের (১ ফেব্রুয়ারি) ওই বিবৃতিতে সংশোধিত নাগরিকত্ব আইনের (সিএএ) প্রতিবাদকারীদের বিরুদ্ধে ক্ষমতাসীন বিজেপি নেতাদের বিদ্বেষী বক্তব্যের (হেইট স্টেটমেন্ট) সমালোচনা করা হয়। বলা হয়, ‘সহিংসতা থেকে শান্তিপূর্ণ বিক্ষোভকারীদের সুরক্ষা দিতে ব্যর্থ হয়েছে কর্তৃপক্ষ।’

Please follow and like us:
RSS
Follow by Email