বুধবার ২১ অগাস্ট ২০১৯ ৬ই ভাদ্র, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

নবাবগঞ্জে ক্রোস রাবারড্যাম র্নিমানে প্রাণ ফিরে পাবে দৃষ্টি নন্দীত আশুড়ার বিল

নবাবগঞ্জ(দিনাজপুর) থেকে এম এ সাজেদুল ইসলাম(সাগর): দিনাজপুরের নবাবগঞ্জ উপজেলা প্রশাসনে সরকার ও উপজেলাবাসীর উন্নয়ন কল্পে আত্ম নিবেদিত নির্বাহী অফিসার মোঃ মশিউর রহমান । বিভিন্ন এলাকার ভূমিদস্যু,সরকারী সম্পত্তি অবৈধভাবে দখলে রাখা ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণসহ সরকারের সম্পত্তি অবৈধ দখলদারের কবল থেকে পূণরুদ্ধার করে নবাবগঞ্জের ইতিহাসে নতুন অধ্যায়ের সুচনা করেছেন।

দিনাজপুরের নবাবগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ মশিউর রহমানের সভাপতিত্বে এবং তারই নিরলস প্রচেষ্টায় ১জুন দিনাজপুরের নবাবগঞ্জ উপজেলা জাতীয় উদ্যান ঘেষা আশুড়ার বিলে শেখ ফজিলাতুন্নেছা কাঠের সেতুর উদ্বোধন করেন দিনাজপুর ৬ আসনের সংসদ সদস্য মোঃ শিবলী সাদিক এমপি ও বিশেষ অতিথি দিনাজপুর জেলা প্রশাসক মোঃ মাহামুদুল আলম। উদ্বোধনের পরেই তিন দিন ব্যপি মেলার আয়োজন করে নবাবগঞ্জ উপজেলা প্রশাসন। প্রথম দিনেই মেলায় সকাল থেকে ছোট বড় নানা শ্রেনীর মানুষের উপছে পড়া ভীড় শুরু হয়।

বন্য পাখীর জন্য পাতানো শাল গাছের ডালে ডালে মাটির পাতিলে বাসা, প্রাকৃতিক পানির স্বচ্ছ ফোয়ারা, বিভিন্ন প্রজাতির শাপলা ফুলসহ হাজার রকমের দৃষ্টি নন্দন প্রাকৃতিক দৃশ্য আগত উৎসুক দর্শনাথীর মন আকৃষ্ট করে। বিষয়টি বিভিন্ন গণ-মাাধ্যমে প্রচার ও প্রকাশ পেতে থাকে। পর্যটকদের আকর্ষনে কাঠের আঁকাবাঁকা সেতুটি নির্মান থেকেই সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ব্যাপক প্রচারে মুগ্ধ হয়েছে দেশের পর্যটকেরা।

শেখ ফজিলাতুন্নেছা আঁকাবাঁকা কাঠের সেতুটি একটি নজর দেখার জন্য দূর দূরান্ত থেকে ছুটে এসেছেন পর্যটকেরা। দেশের ঐতিহ্যবাহী জাতীয় উদ্যান ঘেষা আশুড়ার বিল রয়েছে। প্রাকৃতিক সৌন্দর্য আর মনমাতানো নান্দনিক এই বিলটির বর্ষা মৌসুমে দেশি প্রজাতির মাছ, হারিয়ে যাওয়া জাতীয় শাপলা ফুলের বিস্তার।

এমন পরিবেশ মনমাতানো দৃশ্য ও আশুড়ার বিলের উপর আঁকাবাঁকা কাঠের সেতু দর্শানার্থীর মন কেড়েছে। সেতুর দু’পাশে বিশাল বন বনের ভেতরে বসার জায়গা, বিশুদ্ধ পানির ব্যবস্থা আর এত মানুষের ভীড় সব মিলে পর্যটকদের যেন মুগ্ধ করেছে।

নবাবগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ মশিউর রহমান উপজেলায় যোগদান করার পর থেকেই বিলটির গুরুত্ব তুলে ধরতে নির্বাহী অফিসার নেন একের পর এক ঝুঁকিপূর্ণ উদ্যোগ। শাপলা ফুলের বংশ বিস্তারে ফুলের চারা রোপন আশুড়ার বিলের ধারে বিভিন্ন প্রজাতির ফুলের চারা লাগানো , জাতীয় উদ্যানের শাল গাছে পাখির অভয়াশ্রমের জন্য মাটির হাড়ি ঝুলিয়ে পাখির আবাসস্থানের ব্যবস্থা করণ ইত্যাদি।

 পর্যটকেরা ঘুরে ফিরে দেখে এমন সুন্দর উদ্যোক গ্রহন করার জন্য উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ মশিউর রহমানকে সাধুবাদ ও ধন্যবাদ জানান। একপর্যায়ে তিনি বুঝতে পারলেন, কোনোভাবে যদি বিলের পানি আটকানো সম্ভব হয় তবে, সরকারের রাজস্ব আয়সহ অত্র এলাকার কয়েক হাজার মানুষের কর্ম সংস্থান সৃষ্টির মাধ্যমে স্বাচ্ছন্দ জীবণ যাপনে কোনো অসুবিধা হবেনা। তাঁর সম্ভাবনার স্বপ্ন বাস্তব হতে চলেছে। আশুড়ার বিলে ক্রস রাবারড্যাম নির্মান কাজ চলছে।

এরই মধ্যে ঐ এলাকার কিছু চিহ্নিত ব্যক্তি সরকারের ও উপজেলার উন্নয়নে নানা প্রকার ভুতুড়ে জটিলতা সৃষ্টির জন্য এবং সরকারী সম্পত্তি পূণরায় অবৈধ দখলের মাধ্যমে সরকারের উন্নয়ন কাজ আটকানোর অশুভ চেষ্টায় মগ্ন হয়ে পড়েছে। পর্যটকদের সুবিধার্থে ও আধুনিকায়নে নেয়া হয়েছে বিভিন্ন উদ্যোগ।

পর্যটকরা এখানে সারা বছর আসতে পারবেন। এছাড়াও জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল অধিদপ্তর দিনাজপুরের পক্ষ থেকে উন্নতমানের ল্যাট্নি , সহ বিদ্যুৎ সংযোগের ব্যবস্থা গ্রহন করা হয়েছে। উল্লেখিত বিষয়গুলি কিছু স্বার্থলোভী অসৎ ব্যক্তি ভালো চোখে দেখছেনা। সরকারের ও এলাকার উন্নয়নের বিরুদ্ধে নানা ষড়যন্ত্রে লিপ্ত থেকে নানা জটিলতা সৃষ্টির চেষ্টা অব্যাহত রেখেছে। তবে নবাবগঞ্জ উপজেলার সুযোগ্য নির্বাহী অফিসার জানান, হাজার প্রতিকূলতার মাঝেও সরকারের সম্পত্তি অবৈধ দখল উচ্ছেদসহ উপজেলাবাসীর ভাগ্য পরিবর্তনে তিনি পিছপা হবেন না।