সোমবার ২২ অক্টোবর ২০১৮ ৭ই কার্তিক, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

পঞ্চগড়ে বাবা-মাকে হত্যায় ছেলেকে যাবজ্জীবন কারাদন্ড দিয়েছে আদালত

পঞ্চগড় প্রতিনিধি ঃ পঞ্চগড়ে চাঞ্চল্যকর পিতা-মাতাকে হত্যাকারী ছেলে মঞ্জুরুল হাসান শান্ত’র যাবজ্জীবন কারাদন্ড ও ১০ হাজার টাকা জরিমানা, অনাদায়ে আরও দুই বছরের কারাদন্ডের আদেশ দিয়েছেন আদালত। সোমবার দুপুরে পঞ্চগড় অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আনিছুর রহমান এই আদেশ দেন।

মামলার বিবরণে জানা গেছে, ২০১৫ সালের ২২ মার্চ পঞ্চগড় জেলা শহরের পুরাতন ক্যাম্প ভাই ভাই মঞ্জিলের বাসায় ছেলে শান্ত প্রকাশ্য দিবালোকে তার পিতা মুক্তিযোদ্ধা মিজানুর রহমান বুলবুল ও মাতা সুলতানা আক্তার রিনাকে কুপিয়ে ও জবাই করে হত্যা করে। খবর পেয়ে পঞ্চগড় থানা থেকে পুলিশ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে শান্তকে ধরতে গেলে তৎকালীন পঞ্চগড় থানার এসআই আরিফ ও এএসআই এনামুল ছুরির আঘাতে আহত হন। তাৎক্ষনিক পুলিশ শান্তকে আটক করে জেল হাজতে প্রেরণ করে। এ ঘটনায় ওই দিনই আসামী শান্তর বড় ভাই আখতারুজ্জামান সাগর বাদী হয়ে পঞ্চগড় সদর থানায় একটি হত্যা মামলা করে।

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই রঞ্জু আহম্মেদ গত ২০১৫ সালের ৩১ জুলাই আদালতে চার্জশিট প্রদান করেন। দীর্ঘদিন সাক্ষীদের জেরা ও বিচারিক প্রক্রিয়া শেষে আজ সোমবার পঞ্চগড় অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আনিসুর রহমান আসামীর উপস্থিতিতে রায় ঘোষণা করেন।

বাদী পক্ষে এপিপি অ্যাডভোকেট জাহাঙ্গীর আলম ও আসামী পক্ষে অ্যাডভোকেট আব্দুল আলিম মামলা পরিচালনা করেন।