শুক্রবার ৫ জুন ২০২০ ২২শে জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

পরিকল্পিত ডিজিটাল নগর গড়তে চায়- মেয়র মোশারফ হোসেন বাবুল

বিকাশ ঘোষ,বীরগঞ্জ (দিনাজপুর) প্রতিনিধি : দিনাজপুরের বীরগঞ্জ পৌরসভা হবে একটি পরিকল্পিত ডিজিটাল নগরী। সেইসাথে বীরগঞ্জ পৌরসভাকে খ শ্রেণি ক শ্রেণিতে উন্নতি করে পৌরসভাবাসীকে বাসযোগ্য একটি শহর হিসেবে গড়ে তোলা হবে। একান্ত সাক্ষাৎকারে পৌর মেয়র মোশারফ হোসেন বাবুল আমাদেরন সংবাদদাতাকে বলেন, গত বছরের ১৫ এপ্রিল দিনাজপুর জেলার বীরগঞ্জ পৌরসভার নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। নির্বাচনে বিপুল ভোটে জয়ী হয়ে মোশারফ হোসেন বাবুল ১২ মে ২০১৯ শপথ নিয়ে পৌরসভার ব্যাপক উন্নয়ন কাজ শুরু করেন। মো: মোশারফ হোসেন বাবুল রাজনৈতিক জীবনের বিষয়ে প্রশ্নের উত্তরে তিনি জানান, ১৯৭৬ সালে ছাত্রজীবন থেকেই রাজনীতিতে তিনি জড়িয়ে পড়েন। একাধরে তিনি বীরগঞ্জ পৌর যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক হিসেবে দু’বার দায়িত্ব পালন করেন। এ ছাড়াও বর্তমানে পৌর আওয়ামী লীগের পর পর দু’বার সভাপতির দায়িত্ব পালন করে আসছেন তিনি। মোঃ মোশারফ হোসেন বাবুল বলেন, ২০০২ খ্রিস্টাব্দে প্রায় ৬.৩  বর্গমিটার এলাকা নিয়ে বীরগঞ্জ পৌরসভা প্রতিষ্ঠিত হয়। বর্তমানে বীরগঞ্জ পৌরসভার ৯টি ওয়ার্ড সমন্বয়ে একটি দ্বিতীয় শ্রেণি পৌরসভা। যার লোক সংখ্যা প্রায় ২০ হাজার ৭৮০ জন। আমাদেরন সংবাদদাতাকে আরও বলেন, দলের নেতাকর্মীসহ দলমতের ঊধর্ব থেকে জাতি,  ধর্ম বর্ণ নির্বিশেষে সর্বস্তরের মানুষ আমাকে সমর্থন এবং ভোট দিয়ে মেরয় নির্বাচিত করায় সবার প্রতি আমার কৃতজ্ঞতা। তিনি বলেন, উন্নয়নের ধরা চলমান রাখতে পৌরসভাবাসীর সহযোগিতায় একযোগে কাজ করে যাব। নির্বাচনের প্রতিশ্রুতির ব্যাপারে জানানতে চাওয়া হলে মোশারফ হোসেন বাবুল বলেন,বীরগঞ্জ পৌরসভার দায়িত্ব গ্রহণ করার পর থেকে সার্বিক উন্নয়নে কাজ শুরু করি। ইতোমধ্যে পৌর এলাকায় জাইকার অর্থায়নে প্রায় ১৫ কোটি টাকার ব্যয়ে মাষ্টার ড্রেনের কাজ শেষ পর্যায়। এছাড়াও জনস্বাস্থ্য প্রকল্পে প্রায় ৫০ কোটি টাকার কাজ শুরু হয়েছে গতবছরে নভেম্বরে। এতে সাপ্লাই, কমিনিটি টয়লেট,পাবলিক টয়লেটসহ  বিভিন্ন স্বাস্থ্যমূলক কাজ চলমান রয়েছে। এ প্রকল্পের আওতায় পৌর এলাকায় রাস্তা ও ড্রেনের উন্নয়নে ৫ কোটি টাকার টেন্ডার হয়েছে। শিগগির কাজ শুরু হবে বলে তিনি জানান। শিক্ষার মান উন্নয়নে পৌর উচ্চ বিদ্যালয়ে ২০১৯- ২০ শিক্ষাবর্ষে ভার্তির ইতোমধ্যে শুরু হয়ে গেছে। ডিজিটাল পৌরসভা হিসেবে রুপান্তরিত করতে  বীরগঞ্জ পৌর মেয়র একনিষ্ঠাভাবে কাজ করে যাচ্ছেন। প্রথমই পৌরসভাকে খ শ্রেণি থেকে ক শ্রেণিতে উন্নতি করে মহিলাদের কারিগরি কলেজ স্থাপান, পৌর হাসপাতাল নির্মাণ, পৌর মার্কেট, পৌর বাস টার্মিনাল স্থাপন করতে বদ্ধপরিকর পৌর মেয়র। তিনি আরও বলেন, বিভিন্ন সেমিনার ও ট্রেনিংয়ের মাধ্যমে সেলাই প্রশিক্ষণ দিয়ে বেকার,বিধবা, দুস্থ -অসহায় নারীদের ভ্যাগ উন্নয়নের জন্য সেলাই মেশি, ক্ষুদ্র ঋণ প্রদান করেছি। এছাড়াও বেকার যুবকদের বেকারত্ব দূর করতে মৎস্য ও গবাদিপশুর খামার বিষয়ে প্রশিক্ষণ দিয়েছি। এছাড়াও মাদক,সন্ত্রাস, জঙ্গিবাদ এবং বাল্যবিবাহ বন্ধের জন্য যুবকদের নিয়ে বিভিন্ন সেমিনারের আয়োজন করেছি। বীরগঞ্জ পৌর মেয়র মোশারফ হোসেন বাবুল জানান, পৌরসভার উন্নয়ন ও নাগরিক সেবা নিশ্চিত করতে বদ্ধপরিকর।

Please follow and like us:
RSS
Follow by Email