শনিবার ২৪ অগাস্ট ২০১৯ ৯ই ভাদ্র, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

প্রশ্নপত্র ফাঁস-গুজবের প্রতিবাদে হাবিপ্রবি ছাত্রের পদযাত্রা

হাবিপ্রবি প্রতিনিধি : প্রশ্নপত্র ফাঁস, গুজব ও প্রকাশ্যে রিফাত হত্যার প্রতিবাদে তেঁতুলিয়া-টেকনাফ পদযাত্রা শুরু করেছেন হাজী মোহাম্মদ দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (হাবিপ্রবি) সাইফুল ইসলাম শান্তি নামের এক শিক্ষার্থী। তিনি বিশ্ববিদ্যালয়ের মার্কেটিং বিভাগের ৪র্থ বর্ষে অধ্যয়ন করছেন।

রবিবার (২১ জুলাই) সকাল ৬ টায় পঞ্চগড়ের তেঁতুলিয়া থেকে তার পদযাত্রা শুরু করেন। এর আগে নিজ বিশ্ববিদ্যালয়ে অচলাবস্থা নিরসনের দাবিতে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে একক অবস্থান গ্রহণ করেন এই শিক্ষার্থী। সাইফুল ইসলাম শান্তির বাড়ি পঞ্চগড় সদর উপজেলার আমলাহার এলাকায়।

প্রথম দিনের হাঁটা শেষে পঞ্চগড়ের বোদা উপজেলার একটি হোটেল রাত যাপন শেষে সোমবার সকাল ৯ টায় আবারও হাঁটা শুরু করবেন ঐ শিক্ষার্থী। আবহাওয়া অনুকূলে থাকলে তিনি প্রতিদিন গড়ে ৪০ কিলোমিটার হাঁটতে চান।

প্রকাশ্য দিবালোকে রিফাত হত্যা, প্রশ্নপত্র ফাঁস ও গুজবের প্রতিবাদে পায়ে হেঁটে জনসচেতনতামূলক প্রচারণার উদ্দেশ্যে তার এ কর্মসূচি।

তিনি জানান, সময় পেলে তিনি বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে গিয়ে দুর্নীতিবিরোধী কর্মসূচি পালন করেন। এছাড়া হাট-বাজার ও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে তিনি তার সচেতনতামূলক বক্তব্য তুলে ধরেন।

‘বাংলাদেশের বড় সমস্যাগুলোর মধ্যে প্রশ্নপত্র ফাঁস একটি ভয়াবহ সমস্যা। জাতিকে মেধাশূন্য করার জন্য একটি মহল পরীক্ষার আগেই প্রশ্নপত্র ফাঁস করছে। পঞ্চম শ্রেণীর পরীক্ষা থেকে শুরু করে সকল পাবলিক পরীক্ষার প্রশ্নপত্র এমনকি বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি পরীক্ষার প্রশ্নও অহরহ ফাঁস হচ্ছে।’

‘একটি সমাজ যখন আইন-আদালতের ঊর্ধ্বে ওঠে, তখন আইনের শাসনকে চ্যালেঞ্জ ছুড়ে দেয়া হয়। তখন সমাজে অপরাধ বেড়ে যায়। প্রকাশ্যে শত শত মানুষের উপস্থিতিতে কুপিয়ে মানুষ হত্যা করা হয়।’

প্রকাশ্যে রিফাত হত্যা, প্রশ্নপত্র ফাঁস ও গুজবের বিরুদ্ধে প্রতিবাদের অংশ হিসেবে তেঁতুলিয়া থেকে টেকনাফ হেঁটে জনসচেতনতামূলক প্রচারণা চালানো এই কর্মসূচির মূল উদ্দেশ্য বলে তিনি দাবি করেন।

‘বিভিন্ন গুজব মানুষকে অস্থির করে তুলেছে। বিশেষ করে পদ্মা সেতুতে মানুষের কাটা মাথা লাগার গুজবটি দেশের সকল মানুষকে বিষণ্ন করে তুলেছে। বিভিন্ন পথসভায় এসব গুজবে কান না দেয়ার আহ্বান জানান তিনি।’