মঙ্গলবার ২০ এপ্রিল ২০২১ ৬ই বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

বদলে গেছে খানসামা থানার চিত্র

মো. রফিকুল ইসলাম, চিরিরবন্দর (দিনাজপুর) প্রতিনিধি: দিনাজপুর জেলা ১৩টি থানা নিয়ে গঠিত। এর মধ্যে একটি থানা হলো খানসামা। থানার মূল গেট দিয়ে ভিতরে প্রবেশ করতেই হরেক রকম ফুলের সমাহার দেখে যে কারো মন জুড়িয়ে যাবে। একটু ভিতরে যেতেই ঢালাই দেয়া নতুন রাস্তার পাশে পুলিশ সদস্যদের খেলার জন্য তৈরি আধুনিক ব্যাডমিন্টন কোর্ট। আর থানার মূল ভবনের পিছনে পরিত্যক্ত জমিকে চাষাবাদ উপযোগী করে সেখানে অন্তত ১০০ শতাংশ জমিতে চাষ করা হচ্ছে বিভিন্ন সবজি ও নানান জাতের ফলের বাগান। সংস্কার আর নতুন জায়নামাজে বদলে গেছে থানা মসজিদের ভিতরের চিত্রও। এখন থানায় এলাকার অনেকেই অবসরে ঘুরতে আসেন। আর এসব ছবি ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়লে অনেকে ফুল বাগান ও সবজি চাষে উৎসাহিতও হচ্ছেন।
পুলিশের আচরণ যেমন পাল্টেছে, তেমনি থানার চিত্রও বদলেছে। এতে পূর্বের তুলনায় থানায় সেবার মানও বৃদ্ধি পেয়েছে। থানার মূল ভবনে রঙ তুলির আঁচড় আর থানা চত্বরে বাহারি ফুল-ফল গাছ আর পতিত জমিতে সবজি ক্ষেত মিলে তৈরি হয়েছে অপরূপ সৌন্দর্য্য। এই স্থাপনার সৌর্ন্দয্য বৃদ্ধি ও দৃষ্টিনন্দন করে গড়তে এবং সহজেই মানুষকে সেবা দিতে বিভিন্ন পদক্ষেপ গ্রহণ করেছেন খানসামা থানার ওসি শেখ কামাল হোসেন। বিভিন্ন দায়িত্ব পালনের পাশাপাশি তিনি থানাকে সাজিয়েছেন শৈল্পিক নৈপুণ্যে। ওসি শেখ কামাল হোসেনের সৃজনশীলতায় বদলে গেছে শান্তিপূর্ণ খানসামা থানার চিত্র।
পরিত্যক্ত জমিতে সবজি বাগানে বেগুন, বরবটি, শশা, জিঙ্গে, মিষ্টি কুমড়া, চাল কুমড়া, ঢেরস, পেপে, লালশাক, ডাটা শাক, কলমি শাক, কচু, হলুদ, আদা, লেবু, পুদিনাসহ অন্তত ৩০ রকমের সবজি চাষ করা হয়েছে এবং ফলনও ভালো হয়েছে।
ওসি শেখ কামাল হোসেন এ থানায় যোগদানের প্রায় ১০ মাসের মধ্যেই সৃজনশীল ও যুগোপযোগী পরিকল্পনার ফলে খানসামা থানা ও পুলিশ হয়ে উঠেছে এই উপজেলার মানুষের আস্থার ঠিকানা।
তিনি এই থানায় যোগদানের পর থেকেই মানবিক ও জনবান্ধব পুলিশ হিসেবে প্রাণঘাতী করোনাভাইরাস সংক্রমণ প্রতিরোধ সচেতনতা সৃষ্টি, সুরক্ষা সামগ্রী বিতরণ ও খাদ্য সহায়তা প্রদান করেন।
ওসি শেখ কামাল হোসেন জানান, কোনো চাওয়া-পাওয়ার জন্য নয়, পেশাগত দায়িত্ব পালনের পাশাপাশি ভালো লাগার জায়গা থেকে কাজগুলো করেছি। মানবিক ও জনবান্ধব পুলিশ হিসেবে জনগণের পাশে দাঁড়াতে পুলিশ সর্বদা কাজ করে যাচ্ছে। মানবিক দায়িত্ব পালনের পাশাপাশি যে কোনো অপরাধ দমন, আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখা ও সরকারি নির্দেশনা বাস্তবায়নে সর্বদা তিনি সজাগ আছেন।

Please follow and like us:
RSS
Follow by Email