সোমবার ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৯ ৮ই আশ্বিন, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

বীরগঞ্জে শিশু ফোরামের স্বাস্থ্য সুরক্ষা সচেতনতা বিষয়ক সভা

প্রদীপ রায় জিতু,  দিনাজপুর প্রতিনিধি।। আলোকিত বীরগঞ্জ শিশু ফোরামের আয়োজনে শিশু ফোরামের স্বাস্থ্য সুরক্ষা সচেতনতা বিষয়ক সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

বীরগঞ্জের পৌরশহরে ০৬ সেপ্টেম্বর শুক্রবার সকালে  মুন্নী আক্তারের সভাপিত্বতে স্বাস্থ্য সুরক্ষা সচেতনতা বিষয়ক সভায় বক্তব্য রাখেন আলোকিত বীরগঞ্জ শিশু ফোরামের সভাপতি মো: নূরনবী ইসলাম, নিজপাড়া প্রত্যাশা শিশু ফোরামের সভাপতি প্রদীপ রায় জিতু ও  আলোকিত শিশু ফোরামে সম্পাদক ইতি আক্তার। অন্যান্যদের মধ্যে আরও উপস্থিত ছিলেন উদয় মহন্ত, সাবিনা ইয়াসমিন সেতু, রাকেশ রায়, মল্লিকা আক্তির, রাইমন্ড হাসদা, শিশু সুরক্ষা অফিসার ও বীরগঞ্জ এপি, ওয়ার্ল্ড ভিশন বাংলাদেশ এর সকল শিশু ফোরামের সদস্য ও গ্রাম উন্নয়ন কমিটির সভাপিতবৃন্দ।

উক্ত সভায় বক্তব্য রাখেন মোঃ নূরনবী ইসলাম, তিনি তার বক্তব্যে বলেন- আজকের শিশুরা আগামী দিনের ভবিষ্যৎ শিশুদের অধিকার নিশ্চিত করার লক্ষ্যে সকল শিশু ফোরামকে একযোগে কাজ করতে হবে। শিশুরাই পারে শিশুদের পাশে দাড়াতে তাদের মনের কথা বুঝতে। আমরা শিশু “আমরাই পারি সকল শিশুর প্রতি শারীরিক সহিংসতা দূর করতে। আরও বক্তব্য রাখেন নিজপাড়া প্রত্যাশা শিশু ফোরামের সভাপতি প্রদীপ রায় জিতু।

তিনি বলেন- আমরা শিশুদের জন্য কাজ করে আসছি ৬ বছর ধরে। বীরগঞ্জ উপজেলায় সহিংসতায় পরে এরমক শিশু নেই বলেই চলে। আর এই সাফল্যের পিছনে শিশু ফোরামের ভূমিকা অপরিসীম। বীরগঞ্জ উপজেলা শিশু ফোরাম বীরগঞ্জে কাজ করে বলেই বাল্যবিবাহ, শিশু শ্রম, নারী নির্যাতন দিন দিন কমে যাচ্ছে তিনি আরও বলেন যে আগামীতে বীরগঞ্জ উপজেলায়  কোন প্রকার বাল্যবিবাহ, শিশু শ্রম ও নারী নির্যাতন হবে না।

জনাব ইয়ামিন হোসেন, উপেজলা নির্বাহী অফিসার এর সহযোগিতায় ২০২০ সালে বীরগঞ্জ উপজেলা কে বাল্যবিবাহ, শিশু শ্রম ও নারী নির্যাতন মুক্ত বলে ঘোষণা দিবেন সকল শিশু ফোরামের সদস্যবৃন্দের সহযোগিতায়।  আরও বক্তব্য রাখেন ইতি আক্তার, তিনি বলেন- শিশুদের সকল অধিকার নিশ্চিত করার লক্ষ্যে এই শিশু ফোরাম গঠন করা হয়েছে। শিশুরা যাতে কোন প্রকার সহিংসতায় না পরে সেদিকে আমাদের লক্ষ্য রাখতে হবে।

শিশু সুরক্ষা অফিসার রাইমন্ড হাসদা বলেন- শিশু ফোরাম শিশুদের অধিকার নিশ্চিত করার একটি নিরাপদ সংগঠন। শিশুরা তাদের সকল সমস্যা কমিটির সভাপতিদের বলবে এবং সভাপতি সেই সমস্যা সমাধান করার চেষ্টা করবে। সেই সমস্যা সমাধান করার জন্য যতটুকু সাহায্য প্রয়োজন সেটি ওয়ার্ল্ড ভিশন বহন করবে। রাইমন্ড হাসদা শিশুদের উন্নয়ন মূলক কর্মকান্ড করার জন্য উৎসাহ প্রদান করেন।

উক্ত অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন যোসেফ মিন্স, প্রোগ্রাম অফিসার,বীরগঞ্জ এপি ওয়ার্ল্ড ভিশন বাংলাদেশ আরও বক্তব্য রাখেন- মল্লিকা আক্তার, সাবিনা ইয়াসমিন সেতু ও উদয় মহন্ত। উক্ত সভার সভাপিত মুন্নী আক্তার সবার সুস্বাস্থ্য কামনা করে অনুষ্ঠান শেষ করেন এবং অনুষ্ঠানের শেষে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয় এবং বিজয়ীদের মাঝে পুরস্কার প্রদান করা হয়।