রবিবার ২২ জুলাই ২০১৮ ৭ই শ্রাবণ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

রংপুরে ধর্ষণের অভিযোগে যুবকের যাবজ্জীবন

রংপুর প্রতিনিধি : এক কিশোরীকে ধর্ষণের অভিযোগে আসাদুল ইসলাম নামের একজনকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। একইসঙ্গে তাকে দুই লাখ টাকা জরিমানার আদেশ দেন আদালত।

সোমবার দুপুরে রংপুরের নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আদালত ১ এর বিচারক যাবিদ হুসাইন এ রায় দেন।

এছাড়াও ধর্ষিতা কিশোরীর গর্ভের ছেলে সন্তানকে ধর্ষক আসাদুলের সন্তান হিসেবে স্বীকৃতি দিয়ে শিশুটি সাবালক না হওয়া পর্যন্ত তাদের যাবতীয় ভরণ পোষণ রাষ্ট্রকে বহন করার নির্দেশ দিয়েছেন আদালত।

মামলার বিবরণে জানা গেছে, রংপুরের মিঠাপুকুর উপজেলার শালটিগোপালপুর ইউনিয়নের বান্দেরপাড়া গ্রামের আলেফ উদ্দিনের ছেলে আসাদুল ইসলাম ২০০৭ সালের ৩ জুন তারিখে একই গ্রামের ওই কিশোরী মেয়েকে ধর্ষণ করে। এ ঘটনায় কিশোরী গর্ভবতী হয়ে পড়ে। বিষয়টি এলাকাবাসীকে জানালে তারা সালিশে বসেন। সালিশে আসাদুলকে ওই কিশোরীকে বিয়ে করার কথা বললে, আসাদুল ধর্ষণের কথা অস্বীকার করে।

এ ঘটনায় কিশোরী বাদী হয়ে মিঠাপুকুর থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে মামলা করে। দীর্ঘ ১১ বছর ধরে মামলা চলার পর ১০ জন সাক্ষীর সাক্ষ্য ও শুনানি শেষে বিচারক আজ সোমবার আসামি আসাদুল ইসলামকে দোষী সাব্যস্ত করে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড ও দুই লাখ টাকা জরিমানার আদেশ দেন। সেইসঙ্গে বিচারক কিশোরীর গর্ভের সন্তানকে সাইদুল ইসলামের সন্তান হিসেবে স্বীকৃতি দিয়ে শিশুটি সাবালক না হওয়া পর্যন্ত তার ভরণ-পোষণ সরকারকে বহন করতে রায় দেন।