বৃহস্পতিবার ৪ মার্চ ২০২১ ১৯শে ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলাদেশ গড়ে তুলব: নৌ প্রতিমন্ত্রী

নৌ পরিবহন প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ চৌধুরী বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে আমরা মধ্যম আয়ের দেশে উন্নীত হচ্ছি। এখন আমরা উন্নত দেশের স্বপ্ন দেখছি এবং তার নেতৃত্বে আমরা বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলাদেশ গড়ে তুলতে সক্ষম হব।

মঙ্গলবার জাতীয় প্রেসক্লাবে গণআজাদী লীগ আয়োজিত ‘মুজিববর্ষে স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী’ শীর্ষক আলোচনা সভায় তিনি এসব কথা বলেন।

খালিদ মাহমুদ চৌধুরী বলেন, সুযোগ পেলে দেশের মানুষ অনেক আগেই জিয়াউর রহমানের বীর উত্তম খেতাব বাতিল করতো। জাতীয় মুক্তিযোদ্ধা কাউন্সিল কর্তৃক জিয়াউর রহমানের মুক্তিযুদ্ধের খেতাব বাতিলের প্রস্তাবটি যথার্থ।

নৌ প্রতিমন্ত্রী বলেন, ১৫ আগস্ট হত্যাকাণ্ডে জিয়াউর রহমান বেনিফিশিয়ারি। পঁচাত্তর পরবর্তীতে তিনি জাতির পিতার খুনিদের লালন-পালন করেছেন। বঙ্গবন্ধু হত্যাকাণ্ডের বিচার যাতে না হয়; সে ইনডেমনিটি অধ্যাদেশটি আইনে পরিণত করেছিলেন জিয়াউর রহমান। বঙ্গবন্ধুর খুনিদের সংসদে এনেছেন জিয়া। এরশাদ, খালেদা জিয়াও সে পথে চলেছেন।

প্রতিমন্ত্রী আরো বলেন, ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্টের হত্যাকাণ্ডটি কোনো ব্যক্তির হত্যাকাণ্ড নয়; এটি বাংলাদেশকে হত্যা করার পরিকল্পনা ছিল। বঙ্গবন্ধুকে হত্যার পর দীর্ঘ ২১ বছর মুক্তিযুদ্ধ, স্বাধীনতা সংগ্রামের বীরত্বগাঁথা ইতিহাসকে উল্টো পথে নেয়া হয়েছে। এরশাদ, খালেদা জিয়া একই পথে হেঁটেছেন।

খালিদ মাহমুদ চৌধুরী বলেন, বঙ্গবন্ধু ও বীর মুক্তিযোদ্ধাদের বাদ দিয়ে যারা দেশ চালাতে চেয়েছিলেন তারা ব্যর্থ হয়েছেন। কিন্তু বাংলাদেশ এগিয়ে যাচ্ছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে আমরা মধ্যম আয়ের দেশে উন্নীত হচ্ছি। উন্নত দেশের স্বপ্ন দেখছি। শেখ হাসিনার নেতৃত্বে আমরা বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়ে তুলতে সক্ষম হব।

খালিদ মাহমুদ বলেন, আমরা রাজনীতিতে বঙ্গবন্ধুর সান্নিধ্য পাইনি। স্বাধীনতা সংগ্রামের সময় ছিলাম না। মুক্তিযুদ্ধে অংশ নিতে পারিনি। আমরা মুক্তিযুদ্ধের প্রজন্ম। বঙ্গবন্ধুর জীবন থেকে যা পেয়েছি তা অনুসরণ করে প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বে দেশ গড়তে চাই।

গণআজাদী লীগের সভাপতি অ্যাডভোকেট এস কে সিকদারের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক।

সভায় আরো বক্তব্য রাখেন আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় নেতা ও সাবেক মন্ত্রী মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া, তথ্য প্রতিমন্ত্রী মো. মুরাদ হাসান, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা আবু আহমেদ মন্নাফী, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মিরাজ হোসেন প্রমুখ।

Please follow and like us:
RSS
Follow by Email