সোমবার ৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৩ ২৩শে মাঘ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

ইসরাইল মানবিকতার সব চিহ্ন মুছে ফেলেছে – খালেদা

khaleda-bnpসাবেক প্রধানমন্ত্রী ও বিএনপির চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া বলেছেন, আধিপত্যক্ষুধা মেটাতে ইসরাইল মানবিকতার সব চিহ্ন মুছে ফেলে সন্ত্রাসবাদকেই রাষ্ট্রীয় নীতি হিসেবে মেনে চলছে। তাদের এই আচরিত নীতির কারণেই নারী-শিশুসহ অসংখ্য ফিলিস্তিনির রক্ত ঝরছে এবং নিজ বাস্তভিটা থেকে ফিলিস্তিনিরা অতীতেও যেমন উচ্ছেদ হয়েছে তেমনিভাবে এখনো হচ্ছে। এবারে ইসরাইলি বাহিনীর হামলা সাম্প্রতিককালের সবচেয়ে বড় নিষ্ঠুর সামরিক অভিযান। মনে হয় ফিলিস্তিনিদের শেষ অস্তিত্বটুকু নিশ্চিহ্ন না করা পর্যন্ত তাদের প্রতিহিংসার থাবা বিস্তারলাভ করতেই থাকবে।

শনিবার বিকেলে গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে খালেদা জিয়া এসব কথা বলেন।

খালেদা জিয়া বলেন, পবিত্র রমজান মাসেও ফিলিস্তিনি জনগোষ্ঠী ইসরাইলি বর্বর আক্রমণ থেকে রেহাই পাচ্ছে না। দীর্ঘদিন ধরে গাজা উপত্যকাকে অবরুদ্ধ করে রেখে ফিলিস্তিনি জনগোষ্ঠীকে ভয়াবহ মানব বিপর্যের দিকে ঠেলে দেয়ার পরও পুনঃ পুনঃ তাদের ওপর চলছে ইসরাইলি সামরিক অভিযান। গত কয়েকদিনের নির্বিচারে বর্বরোচিত বিমান হামলায় নারী ও কোলের শিশুসহ শতাধিক ফিলিস্তিনিকে নির্মমভাবে হত্যা করা হয়েছে। প্রায় ছয়শোজনের অধিক ফিলিস্তিনি মারাত্মকভাবে আহত হয়েছেন। বিপন্ন ধ্বংসস্তুপে পরিণত করা হয়েছে অসংখ্য বাড়িঘর ও সরকারি বেসরকারি প্রতিষ্ঠান। গাজা উপত্যকায় লোকালয়ের পর লোকালয় এখন বিরানভূমিতে পরিণত হয়েছে। দিশেহারা হয়ে জীবন বাঁচাতে গিয়ে এখন হাজার হাজার ফিলিস্তিনি নিরাপদ আশ্রয় খুঁজে বেড়াচ্ছেন।

বিএনপির চেয়ারপারসন বলেন, আমি মনে করি, ফিলিস্তিনিদের ন্যায়সঙ্গত অধিকার আদায়ের দাবিকে ধ্বংস করার জন্যই সমস্ত হিংস্রতা দিয়ে এই সামরিক আক্রমণ চালানো হয়েছে। আমি গাজা উপত্যকায় ইসরাইলের এহেন মরণঘাতি সামরিক অভিযানের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছি। অবিলম্বে ফিলিস্তিনি জনগোষ্ঠীর ওপর অন্যায় বর্বরোচিত হামলা বন্ধের জন্য ইসরাইলের প্রতি আহ্বান জানাচ্ছি। ইসরাইল যদি তার আগ্রাসী মনোভাব বরাবরের মতো অব্যাহত রাখে তাহলে মধ্যপ্রাচ্যে কখনোই শান্তি ফিরে আসবে না।

সাবেক এই প্রধানমন্ত্রী বলেন, আমি জাতিসংঘসহ আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়কে আহ্বান জানাচ্ছি তারা যেন ইসরাইলকে জীবনবিনাশী ও বিধ্বংসী সামরিক অভিযান বন্ধ করতে চাপ সৃষ্টি করে এবং ফিলিস্তিনি জনগণের জানমালের নিরাপত্তায় এগিয়ে আসে। আমি ইসরাইলি সামরিক হামলায় নিহত ফিলিস্তিনিদের বিদেহী আত্মার মাগফিরাত কামনা করছি এবং তাদের নিকটজনদের প্রতি গভীর সমবেদনা জানাচ্ছি। এছাড়া আহতদের আশু সুস্থতা কামনা করছি।

এদিকে অপর এক বিবৃতিতে বিএনপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর গাজা উপত্যকায় ইসরাইলী পৈশাচিক হামলায় নারী শিশুসহ শতাধিক ফিলিস্তিনিকে হত্যা এবং ছয় শতাধিক ফিলিস্তিনি আহত হওয়ার ঘটনায় তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন। তিনি ফিলিস্তিনি জনগোষ্ঠীর ওপর ইসরাইলের এই বর্বরোচিত হামলাকে সাম্প্রতিককালের সবচেয়ে নিষ্ঠুর ও পৈশাচিক বলে আখ্যায়িত করেন।