শুক্রবার ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২২ ১৫ই আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

কাল ১৯ সিনোম হলে মুক্তি পাচ্ছে ‘বিউটি সার্কাস’

দেশের ১৯টি প্রেক্ষাগৃহে আগামীকাল শুক্রবার (২৩ সেপ্টেম্বর) মুক্তি পেতে যাচ্ছে বহুল প্রতীক্ষিত সিনেমা ‘বিউটি সার্কাস’। মাহমুদ দিদার নির্মিত চলচ্চিত্রটির প্রধান চরিত্রে অভিনয় করছেন দুই বাংলার নন্দিত অভিনেত্রী জয়া আহসান।

বাংলাদেশ সরকারের অনুদানপ্রাপ্ত (২০১৪-১৫), ইমপ্রেস টেলিফিল্ম প্রযোজিত চলচ্চিত্রটি নিবেদন করছে বসুন্ধরা গুঁড়া মশলা। নির্মাতা মাহমুদ দিদার বলেন, মুক্তির আগেই ‘বিউটি সার্কাস’ নিয়ে মানুষের প্রত্যাশা ও ভালোবাসা অভাবনীয়। চলচ্চিত্রটি নিয়ে আমাদের দীর্ঘদিনের লড়াই শেষ হতে যাচ্ছে। শুক্রবার চলচ্চিত্রটি মুক্তি পেতে যাচ্ছে। আশা করছি, আমাদের ইতিহাস ঐতিহ্য ও সংস্কৃতির ধারক এই চলচ্চিত্রটি দর্শক উপভোগ করবেন সিনেমা হলে গিয়ে।

২০১৭ সালের ৬ ফেব্রুয়ারি নওগাঁর সাপাহার ও মানিকগঞ্জে সার্কাসের বিশাল যজ্ঞে দুইশত জনের নির্মাণ সঙ্গী নিয়ে প্রায় দুই হাজার গ্রামবাসীর অংশগ্রহণে সিনেমাটির চিত্রধারণের কাজ করেন নির্মাতা। এর জন্য সার্কাস প্যান্ডেল নির্মাণ ও গ্রাম্যমেলার আয়োজন করতে হয়েছিল।

২০১৭ সালে নির্মাণ কাজ শুরু হলেও চলচ্চিত্রটির ব্যাপ্তি ও নির্মাণের বৃহৎ আয়োজন সম্পন্ন করতে প্রায় পাঁচবছর সময় লাগে নির্মাতার। করোনার কারণেও পিছিয়েছে বহুল প্রতীক্ষিত চলচ্চিত্রটির মুক্তি।

চলচ্চিত্রটির মধ্য দিয়ে দীর্ঘদিন পর দেশের বড়পর্দায় হাজির হচ্ছেন জয়া আহসান। চলচ্চিত্রটির অন্যান্য চরিত্রে অভিনয় করেন চিত্রনায়ক ফেরদৌস আহমেদ, তৌকির আহমেদ, এবিএম সুমন, শতাব্দী ওয়াদুদ, গাজী রাকায়েত, হুমায়ূন সাধু, মানিসা অর্চি, প্রমুখ।

সিনেমাটিতে জয়া আহসান সেজেছেন সার্কাসকন্যা ‘বিউটি’ রূপে। এই অভিনেত্রী বলেন, আমি বলবো এটি আমার অভিনয় জীবনের খুব রোমাঞ্চকর কাজের একটি। অভিনয়শিল্প আপনাকে এমন কিছু জায়গায় নিয়ে যায় যেখানে আপনি আগে কোনোদিন যাননি আবার এমন কিছু চরিত্র প্রদর্শন করার সুযোগ করে দেয় যার অভিজ্ঞতাটাও একেবারে নতুন। এমনি একটি ভিন্নধর্মী চরিত্রে অভিনয় করার সুযোগ এসেছিল সার্কাস- প্রদর্শনকারী সেজে তাও আবার এক জম্পেশ সার্কাসের স্টেজে! সার্কাসের এই পুরো অভিজ্ঞতাটাই আমার জন্য সম্পূর্ণ নতুন ছিল, সামনে থেকে কখনো দেখার সুযোগ হয়নি বলে।

চলচ্চিত্রটি প্রসঙ্গে তিনি বলেন, এটি একটি বিগ ফিল্ম। নির্মাতা মাহমুদ দিদার যে আয়োজন করে চলচ্চিত্রটি নির্মাণ করেছেন তার তুলনা হয় না। বিশাল আয়োজনে সত্যিকারের সার্কাস তাঁবুর নিচে শুটিং অভিজ্ঞতাটা দারুণ ছিলো। চলচ্চিত্রটির জন্য শুভকামনা জানাই।

‘বিউটি সার্কাস’-এ ব্যাবহৃত হয়েছে তিনটি গান। গানগুলো গেয়েছেন চিরকুট ব্যান্ডের ভোকাল শারমিন সুলতানা সুমী, অ্যাশেজ ব্যান্ডের ইভান ও টুনটুন বাউল। সিনেমাটির পরিবেশক একশন কাট্র।

যেসব প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পাচ্ছে ‘বিউটি সার্কাস’: রাজধানীর স্টার সিনেপ্লেক্স- বসুন্ধরা সিটি, স্টার সিনেপ্লেক্স- এস.কে.এস টাওয়ার, মহাখালী, স্টার সিনেপ্লেক্স – বিজয় স্মরণী, স্টার সিনেপ্লেক্স- সনি স্কয়ার, মিরপুর, ব্লকবাস্টার সিনেমাস – যমুনা ফিউচার পার্ক, লায়ন সিনেমাস – কদমতলী (কেরানীগঞ্জ)।

ঢাকার বাইরে গ্রান্ড সিলেট সিনেপ্লেক্স – সিলেট, সিলভার স্ক্রিন- চট্টগ্রাম, মম ইন- বগুড়া, পূরবী- ময়মনসিংহ, বিজিবি- সিলেট, তাজ সিনেমা- নওগাঁ, সংগীত সিনেমা- খুলনা, মর্ডান সিনেমা- দিনাজপুর, পান্না সিনেমা- মুক্তারপুর, রাজ সিনেমা- কুলিয়ারচর, মাধবী সিনেমা- মধুপুর, আনন্দ সিনেপ্লেক্স- গুরু দাসপুর, রাজিয়া সিনেমা- নাগরপুর।

Please follow and like us:
error
fb-share-icon
RSS
Follow by Email