সোমবার ১৬ মে ২০২২ ২রা জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

গণতন্ত্র পুনরুদ্ধারের কর্মসূচি চলছে চলবে: খালেদা

পল্টনে সমাবেKhaleda Zaiaশ যোগদানের জন্য  বিএনপি চেয়ারপার্সন রোবাবর বেলা ১টা ৫০ মিনিটে গুলশানে নিজের বাড়ির প্রাঙ্গণে গাড়িতে ওঠেন। কিন্তু পুরো এক প্লাটুন পুলিশ ও র‌্যাব বাড়ির ফটকে অবস্থান নিয়ে থাকায় তিনি বের হতে পারেননি।

ফটকের ভেতরে সাদা রঙের গাড়ির সামনের আসনে প্রায় এক ঘণ্টা বসে থাকার পর পৌনে ৪টার সময় নেমে আসেন খালেদা।

বিরোধী দলীয় নেতা খালেদা জিয়া বাড়ির ফটকে কয়েকজন গণমাধ্যমকর্মীর সামনে দাঁড়িয়ে বলেন, “গণতন্ত্র পুনরুদ্ধারের কর্মসূচি অব্যাহত থাকবে। আজ না হয় কাল, কাল না হয় পরশু কর্মসূচি চলবে। ফটক আগলে থাকা পুলিশের উদ্দেশে বিএনপি চেয়ারপার্সন বলেন, প্রতিদিনি আপনারা এসে বসে থাকবেন গেইটের সামনে। আমিও আসব। চলুক, কতো দিন চলে।

বর্তমান সরকারকে ‘অবৈধ ও অগণতান্ত্রিক’ সরকার আখ্যায়িত করে খালেদা বলেন, “সরকারের যদি লজ্জা থাকে তাহলে অবিলম্বে তাদের বিদায় নেয়া উচিত।

এ সময় তার এক হাতে ছিল জাতীয় পাতাকা। বাড়ির উল্টো দিকে অপেক্ষায় থাকা গণমাধ্যমকর্মীদের উদ্দেশ্যে অন্য হাত নেড়ে তিনি পুলিশ সদস্যদের সঙ্গে কথা বলতে শুরু করেন। এ সময় খালেদাকে পতাকা হাতে দাঁড়িয়ে ক্ষুব্ধ কণ্ঠে কথা বলতে দেখা যায়।
ওই বাড়ির সামনে এক প্লাটুন ছাড়াও রাস্তার ওপর সকাল থেকেই এক প্লাটুন নারী পুলিশ মোতায়েন রয়েছেন। আর সড়কের প্রবেশপথসহ পুরো এলাকায় মোতায়েন করা হয়েছে আরো ছয় প্লাটুন পুলিশ। বাড়ির সামনে একটি জলকামানও রাখা হয়েছে।  বাড়ির সামনে দুটো ও রাস্তায় গলির মুখে তিনটি বালিবোঝাই ট্রাক আড়াআড়িভাবে রেখে রাস্তা বন্ধ করে দেয়া হয়েছে।
খালেদা জিয়া একদিন আগে এক ভিডিও বার্তায় তিনি উপস্থিত হতে না পারলেও সমাবেশ চালিয়ে যাওয়ার আহ্বান জানান। সেইসঙ্গে সরকারের পতন না হওয়া পর্যন্ত আন্দোলন চালিয়ে যেতে বলেন তিনি।

Please follow and like us:
error
fb-share-icon
RSS
Follow by Email