রবিবার ১৪ অগাস্ট ২০২২ ৩০শে শ্রাবণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

গাভীর বিচিত্র দুটি বাছুর দেখতে মানুষের ভিড়

মোঃ জাকির হোসেন রংপুর ব্যুরো চীফ : নীলফামারীর সৈয়দপুরের কয়াগোলাহাট এলাকার কৃষক ইসমাইল হোসেনের বাড়িতে একটি গাভী তিন পা বিশিষ্ট বাছুরের জন্ম দিয়েছে সোমবার সকালে (১২ অক্টোবর)। জন্মের পর থেকেই বাছুরটি ক্যাঙ্গারুর ন্যায় লাফিয়ে লাফিয়ে চলাচল করছে। এঁড়ে এই বাছুরটি দেখার জন্য কয়াগোলাহাট এলাকার ওই কৃষকের বাড়িতে লোকজনের যাতায়াত বেড়েছে।

অপরদিকে নাকহীন একচোখ বিশিষ্ট বিচিত্র আকারের একটি বাছুরের জন্ম হয়েছে। নাক না থাকায় বাছুরটি মুখ দিয়ে শ্বাস নিচ্ছে ও নাকহীন স্থানে একটি চোখ রয়েছে। জন্মের পর থেকে বাছুরটি ধীরে ধীরে অসুস্থ হয়ে পড়ছে। ঘটনাটি নীলফামারীর জলঢাকা পৌর এলাকার উত্তর চেরেঙ্গা গ্রামের। বাছুরটি একনজর দেখতে এলাকার ও তার পাশ্ববর্তী গ্রামের শতশত নারী পুরুষ ভিড় জমাচ্ছে।

ওই গ্রামের সিরাজুল ইসলাম ও তার স্ত্রী সাজেদা বেগম জানান, গত ৪ বছর পূর্বে ২৭ হাজার টাকায় বিদেশী জাতের একটি গাভী ক্রয় করেন তারা । গাভীটি এর আগেও দুটি বাছুর জন্ম দিয়েছিল। নাকহীন একচোখ বিশিষ্ট বিচিত্র আকারের বাছুরের জন্ম দেয়। বর্তমানে বাছুরটিকে ফিডারের মাধ্যমে দুধ পান করে বাঁচিয়ে রাখা হয়েছে। বিচিত্র আকারের বাছুরটিকে বাঁচাতে গাভীটির মালিক সিরাজুল ইসলাম প্রাণী সম্পদ বিভাগের সহযোগীতা চেয়েছেন। এ ব্যাপারে জলঢাকা উপজেলা প্রাণী সম্পদ বিভাগের কর্মকর্তা ডাঃ তরিকুল ইসলাম জানান, জন্মগত কারণে বাছুরটি এরকম হয়েছে। বাঁছুরটিকে বাঁচাতে প্রয়োজনীয় চিকিৎসার ব্যবস্থা করা হয়েছে।

 

Please follow and like us:
error
fb-share-icon
RSS
Follow by Email