বুধবার ১৮ মে ২০২২ ৪ঠা জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

চিরিরবন্দরে বিএনপি নেতার বাড়ী ভাংচুরের অভিযোগ

Chirirbandarচিরিরবন্দর (দিনাজপুর) প্রতিনিধি: দিনাজপুরের চিরিরবন্দরে উপজেলা বিএনপির সাংগাঠনিক সম্পাদক ও নশরতপুর ইউপি চেয়ারম্যান মো. নুর-এ-আলম সিদ্দিকী নয়নের বাড়িতে প্রবেশ করে বাড়ির টিভি, ফ্রিজ, শোকেস, আলমারিসহ বিভিন্ন মালামাল ও আসবাবপত্র ভাংচুর এবং নগদ ১০/১২ হাজার টাকা ও ৫ ভরি স্বর্ণালংকার লুট করেছে বলে অভিযোগ করেছে নয়নের পরিবার।

অভিযান চলাকালে পুলিশ জামায়াত নেতা মকবুল হোসাইন মুন্সি, মজিবর রহমান, আজিজার রহমান শাহ্, বাচ্চু, মৃত নুরল হকের বাড়িতেও ভাংচুর চালায় অভিযোগ উঠেছে। রাত ৯টায় জামায়াত-শিবির হরতাল এবং উপজেলা বিএনপির সাংগাঠনিক সম্পাদক ও নশরতপুর ইউপি চেয়ারম্যান মো. নুর-এ-আলম সিদ্দিকী ও জামায়াত নেতা মকবুল হোসাইন মুন্সির বাড়িসহ আরো ৪টি বাড়িতে হামলা চালিয়ে ভাংচুরের প্রতিবাদে একটি মিছিল বের করে। এসময় পুলিশ মিছিলকারীদের ছত্রভঙ্গ করতে আরো ২১ রাউন্ড গুলিবর্ষণ করে। ফলে রাত অন্তত ১০টা পর্যন্ত চলে দফায় দফায় ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা। ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ার সময় জামায়াত-শিবির নেতাকর্মীরা দশমাইল-সৈয়দপুর মহাসড়কে চলাচলরত অন্তত ২৫-৩০টি যানবাহনে হামলা চালিয়ে ব্যাপক ভাংচুর করে। অতিরিক্ত পুলিশ, বিজিবি ও ডিবি পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে উদ্বুদ্ধ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। অভিযান চলাকালে পুলিশ তরিকুল ইসলাম ওরফে বিশ্ব, জাহিদুল ইসলাম ওরফে জাহিদ, রফিকুল ইসলাম ও নুরুজ্জামানসহ ৭ জনকে আটক করে। আটককৃতদের মধ্যে মটর সাইকেল মেকার নুরুজ্জামান ও টেম্পু চালক রফিকুল ইসলামকে একটি মটর সাইকেলসহ আটক করে। এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত রাণীরবন্দর এলাকায় থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে।

 

 

 

Please follow and like us:
error
fb-share-icon
RSS
Follow by Email