মঙ্গলবার ৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৩ ২৪শে মাঘ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের চিরিরবন্দরে দু’পক্ষের সংঘর্ষে মহিলাসহ আহত-১৩

মোছা. সুলতানা রফিক ইসলাম, চিরিরবন্দর (দিনাজপুর) প্রতিনিধি: দিনাজপুরের চিরিরবন্দরে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে দু’পক্ষের সংঘর্ষে  মহিলাসহ ১৩ জন আহত হয়েছে।  আহতদের চিরিরবন্দর উপজেলা স্বাস্থ কমপে­ক্স ও দিনাজপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এলাকাবাসী সুত্রে জানা গেছে, উপজেলার ছোটবাউল গ্রামের মৃত নৃসিংহ রায়ের ছেলে কালিপদ রায়, দিপক কুমার বাবলু ও কৈলাশ চন্দ্র রায়ের সাথে পার্শ্ববর্তী মহাদানী গ্রামের মৃত তোফারউদ্দিনের ছেলে আজিজার রহমান শাহ ও আলাউদ্দিন ওরফে লালের  দীর্ঘদিন ধরে জমি সংক্রান্ত বিরোধ চলছিল। গত বৃহস্পতিবার সকাল ৮টায় আজিজার ও আলাউদ্দিন লাল ছোটবাউল মৌজার কালিপদ দিপক ও কৈলাশের বিক্রিকৃত জমি দাবী করে জমির পার্শ্বে ক্যানেলের উপর বাঁশের সাঁকো ভেঙ্গে দেয়। এ সময় কৈলাশ বাঁধা দিতে এলে আজিজার আলাউদ্দিনসহ ২০-২৫ জনের একটি দল তাকে এলোপাথাড়ি মারপিট করে। কৈলাশের অবস্থা আশংকাজনক দেখে তার ভাই দিপক ও কালিপদসহ বাড়ির লোকজন উদ্ধার করতে এলে শুরু হয় দু’পক্ষের সংঘর্ষ। সংঘর্ষে উভয়পক্ষের ১৩ জন আহত হয়। আহতরা হলেন ছোটবাউল গ্রামের নৃসিংহ রায়ের ছেলে কালিপদ (৬৭), দিপক কুমার রায় বাবলু (৪৮), কৈলাশ চন্দ্র রায় (৪৫), কালিপদর ছেলে দুলাল চন্দ্র রায় (৪২), ভাস্কর চন্দ্র রায় (৩৮), হরিপ্রসাদের ছেলে রিদয় কুমার রায় (৪৫), কালিমোহনের ছেলে রতন কুমার রায় (৪৪), লক্ষী কান্ত রায়ের স্ত্রী সন্ধা রাণী রায় (৪৮), রতন কুমারের স্ত্রী রানু বালা রায় (৩৫), রিদয়ের স্ত্রী জ্ঞানো বালা রায় (৩৫), মহাদানী গ্রামের জয়নাল আবেদীনের ছেলে খাদেমুল ইসলাম (৩০), আলাউদ্দিন ওরফে লালের স্ত্রী মনোয়ারা বেগম (৪০) ও আজিজারের স্ত্রী মোকতারা বেগম (৪২)। এ ব্যাপারে চিরিরবন্দর থানার অফিসার ইনচার্জ (তদন্ত) শম্ভু দাস সুমন জানান, ঘটনার বিষয়টি জেনেছি আপাতত কোন মামলা হয়নি তবে দু’পক্ষই চিকিৎসাধীন থাকায় হয়তো মামলা দেরিতে হতে পারে।