রবিবার ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ ১২ই ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

জিয়া হার্ট ফাউন্ডেশনে ট্রেট্রালজী ফেলোটস নামক রোগের সফল অপারেশন সম্পন্ন

দিনাজপুর : দেশের উত্তরাঞ্চলে হৃদরোগের পূর্ণাঙ্গ চিকিৎসা প্রতিষ্ঠান দিনাজপুরের জিয়া হার্ট ফাউন্ডেশন হাসপাতাল এন্ড রির্সাচ ইনষ্টিটিউট। এই হাসপাতালে একের পর এক জটিল অপারেশনের সাফল্যের ধারাবাহিকতায় একটি রোগীর কনজেনিটাল সায়ানোটিক হার্ট ডিজিসÑটেট্রালজি অব ফেলটস্ নামক জন্মগত জটিল রোগের ওপেন হার্ট অপারেশনের মাধ্যমে নিজস্ব পালমোনারী ভাল্ব সংরণ করে টোটাল কারেকশন সাফল্যের সঙ্গে সম্পন্ন করা হয়। দিনাজপুর জেলার বীরগঞ্জ উপজেলার নিজপাড়াডাঙ্গা গ্রামের আব্দুল মজিদ এর কন্যা খাদিজা (১২)জন্মগত ভাবে এই রোগ নিয়ে ১২ বছর অতিবাহিত করার পর প্রতিষ্ঠানের চীফ কার্ডিয়াক সার্জন ডাঃ মোঃ ফয়েজুল ইসলাম এরোগের সফল অস্ত্রপচার সম্পন্ন করেন। বর্তমানে রোগীটির হার্টের গতি,রক্তের চাপও শরীরের অক্সিজেনের মাত্রা স্বাভাবিক। এরোগে আক্রান্ত রোগীরা জন্মের পর শ্বাস কষ্ট হতো সামান্য চলাফেরায় হাফিয়ে যেত। স্কুলের সব ছেলেমেয়েরাই খেলাধুলা করত কিন্তু খাদিজা খেলাধুলা করতে পারত না। কারণ, সামান্য চলাফেরায় সে হাপিয়ে যেত। কোন প্রকার দৌড়ঝাপ করলেই বুক ধড়পড় করত এবং শ্বাসকষ্ট হতো এবং ধীরে ধীরে শ্বাসকষ্ট আর বুক ধড়পড় করাটা বাড়তে থাকত। এ সকল রোগের প্রথম লক্ষণ সম্পর্কে প্রতিষ্ঠানের চীফ কার্ডিয়াক সার্জন জানান, সামান্য পরিমাণ পরিশ্রমের সাথে সাথেই হাত-পা ঠোট ও জিহ্বা গাঢ় নীল অথবা কালো আকার ধারণ করে। এ রোগটির নাম ট্রেট্রালজি অফ ফেলোটস এতে হৃদপিন্ডের দুই নিলয়ের মধ্যে একটি বড় ছিদ্র থাকে। আর ফুসফুসের রক্ত প্রবাহের নালী (পালমোনারী আর্টারী) চিকন বা সরু থাকে। ডানদিকের নিলয়টা স্বাভাবিকের চেয়ে অনেক বেশী মোটা বা পুরু হয়ে যায় ও ডান নিলয় থেকে ফুসফুসে রক্তের প্রবাহের নালীর গোড়ায় মোটা বা স্থুল মাংসপেশীর বাঁধা থাকে। চিকিৎসা বিজ্ঞানে ডায়নামিক অফ স্ট্রাকশন বলে। ফুসফুসে সঠিক মাত্রায় রক্তে যেতে পারে না। দুই নিলয়ের মধ্যে ছিদ্র থাকায় রক্ত ফুসফুসে যাবার পরিবর্তে ছিদ্র পথে বাম নিলয়ে চলে যায়। ডান নিলয়ের রক্ত হল নীল আর বাম নিলয়ের রক্ত লাল। বাম নিলয়ের অক্সিজেনযুক্ত লাল রক্ত শরীরের বিভিন্ন জায়গায় পৌঁছে। কিন্তু ট্রেট্রালজী ফেলপস রোগের ডান নিলয়ের কালো/নীল রক্ত ছিদ্র পথে বাম নিলয়ে প্রবাহের ফলে এ রোগে আক্রান্ত রোগীরা শরীরের বিভিন্ন অংশ যেমন জিহ্বা, ঠোট, চোখ, হাত-পায়ের নখ নীল/কালো হয়। খাদিজা জন্মের পর এই রোগে আক্রান্ত হয় আজ থেকে ৫ বছর আগে বিভিন্ন স্থানে যোগাযোগ করলে চিকিৎসকগণ এ রোগের অপারেশন করার জন্য প্রস্তুতি নেননি। ৫ বছর ধরে জিয়া হার্ট ফাউন্ডেশনে চিকিৎসাধীন থাকার পর গত ২৬ ফেব্রুয়ারী প্রায় ১০ ঘন্টা সময় ধরে এই সফল ওপেন হার্ট সার্জারীটি করেন প্রতিষ্ঠানের চীফ কার্ডিয়াক সার্জন ডাঃ মোঃ ফয়েজুল ইসলাম।

Spread the love