মঙ্গলবার ৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৩ ২৪শে মাঘ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

দীর্ঘ ৪০ বছর পর মা-ছেলের দেখা

Ma Panchপঞ্চগড়ে ৪০ বছর পর দেখা মিললো মা

ছেলের। মৃত ভেবে

কেটে গেছে ৪০টি বছর। অবশেষে

অলৌকিক ভাবে

শুক্রবার পঞ্চগড় শহরে দেখা মিল্ল মা রেখা পাগলী ও ছেলে

দুলালের। ১৯৭৪ সালে পাবনা থেকে হারিয়ে যায় মা রেখা

পাগলী (৭৫)। তখন থেকে প্রয় ৫ বসর খোজা খোজি

করেউ না মিল্লেও মৃত ভেবে নেয় পরিবার। তবে মাকে

পেয়ে যেন আকাশের চাঁদের চেও বড় কিছু পেল ছেলে

দুলাল (৫৫)। এসময় আনন্দঘন পরিবেশ সৃষ্ঠি হয়। একে

অপরকে জরিয়ে ধরে আনন্দে কেঁদে ফেলেন। তাদের বাড়ী

রাজশাহীর দুর্গাপুর উপজেলার আড়োল গ্রামে। পঞ্চগড়

শহরের ব্যবসায়ী আব্দুর রহমান জানান রেখা পাগলি

১৯৭৪ সালে পঞ্চগড়ে আসেন। তিনি শহরের ব্যবসায়ী

খোরশেদ আলমের বাড়ীতে থাকতেন । বাজারেও ঘুরতেন

আর রেখা পাগলী তার বাড়ীর ঠিকানা বলতেন। তিনি

আরো জানান রাজশাহীর দুর্গাপুর থেকে আসা পান

ব্যবসায়ী কাশেম আলীর কাছে রেখা পাগলির বাড়ীতে

খবর দেয়া হয়,,সে খবর পেয়ে দুর্গাপুর থেকে তার ছেলে

দুলাল ও জামাই বাবুল শুক্রবার পঞ্চগড়ের ব্যবসায়ী

রহমানের দোকানে আসেন। খোজ পান হারিয়ে যাওয়া

মায়ের। দুলাল জানান আমার বয়েস যখন ১০-১২ বছর

তখন নানির সাথে মা হারিয়ে য়ায়। মা মানসিক

ভাসাম্যহীন চিলো। দুই ভাই দুই বোন বড় ভাই মারা

গেছে। তার মেয়ের বিয়ে হয়েছে। তার নাতিও হয়েছে। এ

তদিন পর মাকে পাবো বলে ধারনা করতে পারিনি। মাকে

পেয়ে আল্লাহর কাছে দোয়া করি আর যারা মাকে ৪০ বছর

খাইয়েছে পরিয়েছে তাদের জন্য দোয়া করি আল্লাহ যেন

তাদের সুস্থ রাখে।