বুধবার ১৭ অগাস্ট ২০২২ ২রা ভাদ্র, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

‘দেশে একতরফা নির্বাচনের সংস্কৃতি থামাতে হব-ড. কামাল হোসেন

01552601805_20130822032241জাতিসংঘ দূত অস্কার ফার্নান্দেজ-তারানকোর সঙ্গে বৈঠক করে নির্বাচন পেছানোর ওপর জোর দিয়েছেন নাগরিক সমাজের প্রতিনিধিরা, যাতে সব দলের অংশগ্রহণ নিশ্চিত করা যায়।
রাজনৈতিক সঙ্কট অবসানের লক্ষ্য নিয়ে ঢাকায় আসা জাতিসংঘের সহকারী সেক্রেটারি জেনারেল ফার্নান্দেজ-তারানকো তার ঢাকা সফরের তৃতীয় দিন বেলা আড়াইটার দিকে নাগরিক সমাজের চার প্রতিনিধির সঙ্গে বৈঠকে বসেন।
আইনজীবী ড. কামাল হোসেন ও শাহদীন মালিক, অধ্যাপক জামিলুর রেজা চৌধুরী এবং সুজন সম্পাদক বদিউল আলম মজুমদার রাজধানীর একটি হোটেলে এই বৈঠকে অংশ নেন।
প্রায় ঘণ্টাখানেক বৈঠক শেষে বেরিয়ে এসে কামাল হোসেন সাংবাদিকদের বলেন, ফার্নান্দেজ-তারানকোর তাদের কাছে বাংলাদেশের পরিস্থিতি জানতে চেয়েছেন। তারা বলেছেন, আইনত নির্বাচন এখনো পেছানো সম্ভব বলে তারা মনে করেন।
“আমরা বলেছি, সবার কাছে গ্রহণযোগ্য একটা সামাধান দরকার। একতরফা নির্বাচনের এই রেলগাড়িটা থামাতে হবে।”
শাহদীন মালিক বলেন, “২০০৮ সালের নির্বাচনে ৮৭ শতাংশ ভোট পড়েছিল। দেশের মানুষ চায় ওইরকম একটি নির্বাচন,যাতে সবার অংশগ্রহণ থাকবে।”
জাতিসংঘ দূতের সঙ্গে কি কথা হয়েছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, “উনারা নিউ ইয়র্ক থেকে কোনো ফর্মুলা নিয়ে আসেননি। তিনি সবার সঙ্গে কথা বলবেন। সবাই যেটা চায়, তেমন একটি নির্বাচনই তারা চান।”
ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ ইতোমধ্যে জানিয়েছে, শেখ হাসিনাকে প্রধানমন্ত্রী রেখেই ঘোষিত তফসিল অনুযায়ী ৫ জানুয়ারি ভোট করবে তারা। তবে বিরোধী দল বিএনপি এই নির্বাচন প্রতিহতের ঘোষণা দিয়ে টানা আন্দোলন চালিয়ে আসছে। রাজনৈতিক সহিংসতায় গত তিন সপ্তাহে অর্ধশতাধিক লোকের মৃত্যু হয়েছে।
জাতীয় পার্টির প্রার্থীরা নির্বাচনে অংশ নিতে মনোনয়নপত্র জমা দিলেও পরিবেশ না থাকার কথা বলে ৩ ডিসেম্বর ভোট থেকে সরে দাঁড়ানোর কথা জানায় দলটি।
এই পরিস্থিতিতে পাঁচ সদস্যের একটি প্রতিনিধি দল নিয়ে শুক্রবার রাতে ঢাকা পৌঁছান জাতিসংঘের সহকারী সেক্রেটারি জেনারেল অস্কার ফার্নান্দেজ-তারানকো। পরদিন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এবং বিএনপি চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়ার সঙ্গে বৈঠক করেন ফার্নান্দেজ-তারানকো।
শনিবার বিকালে গণভবনে সভাশেষে প্রধানমন্ত্রীর পররাষ্ট্রবিষয়ক উপদেষ্টা গওহর রিজভী সাংবাদিকদের জানান, নির্বাচনের ঘোষিত তারিখ পেছানো যায় কি না- শেখ হাসিনার কাছে তা জানতে চেয়েছেন জাতিসংঘের দূত। জবাবে প্রধানমন্ত্রী তাকে বলেছেন, তফসিল পরিবর্তনের বিষয়টি নির্বাচন কমিশনের এখতিয়ারে। তাদের সঙ্গেই এ বিষয়ে কথা বলতে হবে।
তবে যে তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে নির্বাচনের দাবিতে বিএনপি আন্দোলন করে আসছে, সেই ব্যবস্থা নিয়ে আলোচনায় ফার্নান্দেজ-তারানকো আগ্রহ দেখাননি বলে জানান রিজভী।
প্রধানমন্ত্রীর পর রাতে বিরোধী দলীয় নেতা খালেদা জিয়ার সঙ্গে বৈঠকে বসেন জাতিসংঘের সহকারী সেক্রেটারি জেনারেল।
ওই বৈঠকের পর বিএনপির সহসভাপতি শমসের মবিন চৌধুরী বলেন, আলোচনার প্রক্রিয়া শেষ না হওয়া পর্যন্ত কিছু বলা যাবে না। দুই-একদিনের মধ্যে আবার আলোচনা হবে। এরপর এ বিষয়ে জানানো হবে।
রোববার জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান এইচ এম এরশাদ, প্রধান নির্বাচন কমিশনার কাজী রকিবউদ্দীন আহমদ ও প্রধানমন্ত্রীর উপদেষ্টা গওহর রিজভীর সঙ্গেও বৈঠক করেন জাতিসংঘ দূত।
সফর শেষে বাংলাদেশ ত্যাগের আগে সাংবাদিকদের সামনে ব্রিফ করার কথা রয়েছে ফার্নান্দেজ-তারানকোর।

Please follow and like us:
error
fb-share-icon
RSS
Follow by Email