শনিবার ২৫ জুন ২০২২ ১১ই আষাঢ়, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

নাইজার নদীতে আলজেরিয় বিমান বিধ্বস্ত : নিহত ১১৬

Biman১১৬ জন যাত্রী নিয়ে নিখোঁজ আলজেরিয়ার যাত্রীবাহী বিমানটি নাইজার নদীতে বিধ্বস্ত হয়েছে বলে স্থানীয় গণমাধ্যমের বরাত দিয়ে নিজেদের ওয়েব সাইটে খবর প্রকাশ করেছে সংবাদ ভিত্তিক ভারতীয় টিভি চ্যানেল এনডিটিভি। তবে তাৎক্ষণিকভাবে এর বিস্তারিত জানাতে পারেনি চ্যানেলটি। এর আগে উড্ডয়নের ৫০ মিনিট পর থেকেই বিমানটি নিখোঁজ হয়ে যায়। তখন থেকে বিমানটির কোন সিগনাল পাওয়া যাচ্ছিল না। এ ঘটনায় বিমানটিব সব আরোহীই প্রাণ হারিয়েছে বলে ধারনা করা হচ্ছে। আজ বৃহস্পতিবার সকালে পশ্চিম মধ্য আফ্রিকার দেশ বুরকিনাফাসোর রাজধানী ওয়াগাদৌগৌ থেকে আলজেরিয়ার ভূমধ্যসাগর তীরবর্তী রাজধানী আলজিয়ার্স যাচ্ছিল বিমানটি। বৃহস্পতিবার দুপুরে আন্তর্জাতিক গণমাধ্যম জানায়, এএইচ৫০১৭ নং আন্তর্জাতিক ফ্লাইটটি উড্ডয়নের পৌনে এক ঘণ্টারও বেশি সময় পর থেকে কন্ট্রোল রুমের সঙ্গে যোগাযোগ হারিয়েছে। বিমানটিতে ১১০ যাত্রী ও ৬ জন ক্রু রয়েছেন। বিমিানটির মালিক স্প্যানিশ এয়ারলাইন সুইফটএয়ারও এ খভর নিশ্চিত করেছে।
এছাড়া উড়োজাহাজটির সঙ্গে সর্বশেষ আন্তর্জাতিক সময় বুধবার দিবাগত রাত ০১টা ৫৫ মিনিটে সর্বশেষ যোগাযোগ করা হয় এবং আন্তর্জাতিক সময় রাত ৪টা ১০ মিনিটে এটির অবতরণ করার কথা ছিল বলে জানায় সুইফটএয়ার। এয়ার আলজেরি জানায়, স্থানীয় সময় বুধবাবার দিনগত রাত ০১টা ১৭ মিনিটে এএইচ৫০১৭ উড্ডয়ন করে এবং স্থানীয় সময় ভোর ০৫টা ১০ মিনিটে অবতরণ করার কথা।
নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক প্রতিষ্ঠানটির একটি ঘনিষ্ঠ সূত্র জানিয়েছে, আলজিয়ার্স-বামাকো রুটে চলাচলকারী বিপরীত দিক থেকে আসা একটি উড়োজাহাজের সঙ্গে সংঘর্ষের ঝুঁকি এড়াতে এএইচ৫০১৭ এর পাইলটকে নির্দেশনা দেওয়ার সময় উড়োজাহাজটি গন্তব্য আলজেরিয়া সীমান্তের খুব বেশি দূরে ছিল না। অর্থাৎ রুট পরিবর্তন করার পরই উড়োজাহাজটি নিখোঁজ হয়ে যায়। উড়োজাহাজটির আরোহীদের মধ্যে বেশিরভাগই আলজেরিয়ান নাগরিক রয়েছেন।
এদিকে এয়ার আলজেরির উদ্ধৃতি দিয়ে দেশটির রাষ্ট্রীয় সংবাদ সংস্থা আলজেরি প্রেস সার্ভিস (এপিএস) জানিয়েছে, বৃহস্পতিবার ওয়াদৌগৌ থেকে আলজিয়ার্সগামী উড়োজাহাজটি উড্ডয়নের ৫০ মিনিট পর থেকে বিমান পরিচালনা কর্তৃপক্ষের সঙ্গে এটির সবরকমের যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন রয়েছে।
এয়ার আলজেরি প্রতি সপ্তাহে ৪টি ফ্লাইট পরিচালনা করে ৪ ঘণ্টা দূরত্বের ওয়াদৌগৌ-আলজিয়ার্স রুটে। প্রতিষ্ঠানটি জানিয়েছে, এএইচ৫০১৭ উড়োজাহাজটির ভাগ্য অনুসন্ধানে জরুরি কার্যক্রম শুরু করা হয়েছে। প্রতিষ্ঠানটির একটি ঘনিষ্ঠ সূত্র গণমাধ্যমকে জানায়, পর্তুগিজ প্রতিষ্ঠান থেকে কেনা ডিসি-৯ উড়োজাহাজটিতে ১৩৬ জন যাত্রী বহন করা হয়ে থাকে। অবশ্য
প্রসঙ্গত গত ১৭ জুলাই মালয়েশিয়া এয়ারলাইনসের আরেকটি বিমানের সঙ্গে কর্তৃপক্ষের যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়। বিমানটি ইউক্রেইনের সংঘাতপূর্ণ এলাকায় বিধ্বস্ত হলে ২৯৮ জন আরোহীর সবাই নিহত হন। যুক্তরাষ্ট্র ও ইউক্রেইন অভিযোগ করে আসছে, ইউক্রেইনের রুশপন্থী বিচ্ছিন্নতাবাদীরা ক্ষেপণাস্ত্র ছুড়ে মালয়েশীয় বিমানটিকে ভূপাতিত করে। এছাড়া গতকাল তাইওয়ানের একটি বিমান বিধ্বস্ত হয়ে অন্তত ৪৮ জন প্রাণ হারিয়েছে।

Please follow and like us:
error
fb-share-icon
RSS
Follow by Email