শুক্রবার ২৭ জানুয়ারী ২০২৩ ১৩ই মাঘ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

নিখোঁজ বিমান নিয়ে ব্রিটিশ ট্যাবলয়েডের সংবাদটি বানানো

ইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক: মালয়েশিয়ার নিখোঁজ বিমান চালকের মেয়ে অভিযোগ করেছেন, যুক্তরাজ্যের একটি ট্যাবলয়েড তার পরিবারের সদস্য দের উদ্ধৃত করে তার বাবার সম্পর্কে যে সংবাদটি ছেপেছে তা ‘বানানো’।

যুক্তরাজ্যের ট্যাবলয়েড ডেইলি মেইলের একটি খবরে রোববার বলা হয়েছিল, নিখোঁজ বিমান চালক ক্যাপ্টেন জাহারি আহমাদ শাহ (৫৩) ‘মানসিক অস্থিরতায়’ ছিলেন বলে তার পরিবারের সদস্য রা জানিয়েছেন। গত ৭ মার্চ শুক্রবার দিবাগত রাত স্থানীয় সময় ১২ টা ৪১ মিনিটে কুয়ালালামপুর থেকে বেইজিং যাওয়ার পথে মালয়েশিয়া এয়ারলাইন্সের ফ্লাইট ৩৭০ নিখোঁজ হয়। বিমানটিতে ১৪ টি দেশের ২৩৯ জন আরোহী ছিলেন। বিমানের সবচেয়ে বেশি ১৫৩ জন আরোহী ছিলেন চীনের। বিমানের পাইলট ছিলেন ক্যাপ্টেন জাহারি আহমাদ শাহ ও সহকারী পাইলট ছিলেন ফারিক আব্দুল হামিদ (২৭)। কর্তৃপক্ষ এখন ওই দুই জন চালকের সামগ্রিক পরিচয় খতিয়ে দেখছে। নিউজ ওয়েবসাইট মালয়েশিয়ার ইনসাইডার সোমবার জানায়, ক্যাপ্টেনের মেয়ে আয়েশা জাহারি বলেন, ডেইলি মেইলের খবরটি বানানো।

আয়েশা (২৮) রোববার তার ফেসবুকে একটি পোস্টে লিখেছেন, ‘প্রিয় ডেইলি মেইল, তোমাদের সিনেমা বানানো উচিত কারণ তোমরা গল্প বানাতে দক্ষ।’ তিনি লেখেন, ‘আল্লাহ তোমাদের ক্ষমা করতে পারেন। তবে আমি তোমাদের কখনও ক্ষমা করবো না।’ তবে আয়েশার এ বক্তব্য সঠিক কিনা তা জানার চেষ্টা চালায় বার্তা সংস্থা এএফপি। তবে বিধিনিষেধ ধাকায় আয়েশার ফেসবুক পেজে ঢুকতে পারেনি সংস্থাটি। ডেইলি মেইল জানায়, জাহারির সঙ্গে তার স্ত্রীর সম্পর্ক প্রায় তালাকের পর্যায়ে ছিল। পাইলটের পরিবারের এক ঘনিষ্ঠ সূত্রের বরাত দিয়ে খবরে বলা হয়, জাহারির স্ত্রী ফায়জা খানম মুসত্মাফা খান তদমত্মকারীদের জানান, ফ্লাইটের আগে কয়েক সপ্তাহ ধরে জাহারি তার সঙ্গে কথা বলা বন্ধ করে দিয়েছিলেন।