বৃহস্পতিবার ১৮ এপ্রিল ২০২৪ ৫ই বৈশাখ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

পার্বতীপুর মধ্যপাড়া পাথর খনিতে উৎসাহ ভাতা পেলেন ৯০ জন খনি শ্রমিক

সোহেল সানী, পার্বতীপুর, দিনাজপুর প্রতিনিধি : দিনাজপুরের পার্বতীপুরস্থ মধ্যপাড়া কঠিন শিলাপাথর খনির ঠিকাদারী প্রতিষ্টান জার্মানিয়া-ট্রেষ্ট কনসোর্টিয়াম (জিটিসি) তাদের অধীনে কর্মরত খনি শ্রমিকদের পাথর উত্তোলনের কাজে দক্ষতার জন্য ৯০ জন শ্রমিককে উৎসাহ ভাতা প্রদান করেছে।

 

পাথর খনিতে জিটিসির অধীনে খনির ভুগর্ভে তিন শিফটে কর্মরত বিভিন্ন বিভাগের যে সকল খনি শ্রমিক পাথর উত্তোলন কাজ করছে, তাদের মধ্যে থেকে উৎপাদন কাজে দক্ষতা ও ভালো কাজের জন্য পুরস্কার স্বরুপ ৯০ জন খনি শ্রমিককে এই উৎসাহ ভাতা প্রদানের জন্য নির্বাচিত করা হয়।

 

জিটিসি সুত্র জানায়, তারা মধ্যপাড়া খনিতে পাথর উত্তোলন শুরুর পর থেকে তাদের অধীনে কর্মরত খনি শ্রমিকদের পাথর উত্তোলন প্রক্রিয়ায় দক্ষতা, ব্যবহার ,শৃংখলা ও সময়ানুবর্তিতার নিরপেক্ষ মূল্যায়নের ভিত্তিতে বিভিন্ন বিভাগ থেকে বাছাইকৃত সেরা শ্রমিকদের পুরস্কৃত করার পূর্ববর্তী মাসগুলোর ঘোষণার ধারাবহিকতা অব্যাহত থাকার পাশাপাশি কাজে উৎসাহ বাড়াতে গত বছরের ডিসেম্বর মাসের কাজের মুল্যায়নের ভিত্তিতে উৎপাদন কাজে প্রত্যক্ষভাবে নিয়োজিত বিভিন্ন বিভাগ হতে ৯০ জন খনি শ্রমিককে বাচাই পুর্বক এই উৎসাহ ভাতা দেয়া হলো।

 

শ্রমিকদের এই উৎসাহ ভাতার অর্থ প্রত্যেকের নিজ নামে খোলা ব্যাংক হিসাবে জমা প্রদান করা হয়। জার্মানিয়া-ট্রেষ্ট কনসোর্টিয়াম (জিটিসি) তাদের কার্যক্রমের শুরম্ন থেকেই প্রতিমাসে খনি শ্রমিকদের দক্ষতার জন্য আর্থিক পুরস্কার দিয়ে যাচ্ছে।

 

উৎসাহ ভাতার জন্য নির্বাচিত খনি শ্রমিকরা জানান, খনির পাথর উত্তোলন কাজে দক্ষতার মুল্যায়ন করে প্রতিমাসে এই পুরস্কার আবার বাড়তি হিসেবে উৎসাহ ভাতা যারা পাচ্ছেন তারা কাজে উৎসাহী হচ্ছেন এবং দক্ষতা প্রমান করার সুযোগ পাচ্ছেন। যারা পাচ্ছেন না তারা কাজের প্রতি আরো মনোযোগী হচ্ছেন।

 

জিটিসিই প্রথম শ্রমিকদের দক্ষতার মুল্যায়ন স্বরুপ পুরস্কার এবং উৎসাহ ভাতা প্রদানের প্রথা চালু করায় তাদের কাজে উৎসাহ বাড়ছে এবং দক্ষতাও বাড়বে বলে তারা মনে করেন।

Spread the love