শনিবার ১ অক্টোবর ২০২২ ১৬ই আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

পুরনো চেহারায় ছাত্রলীগ

RU-PIC-0সাব্বির অনিক রাজশাহী থেকে: আন্দোলনরত শিক্ষার্থীরা রোববার সকালে ক্লাস-পরীক্ষা বন্ধ রেখে অ্যাকাডেমিক ভবনগুলোতে তালা দিয়ে তৃতীয় দিনের মতো বিক্ষোভ শুরুর পর তাদের ওপর দফায় দফায় হামলা চলে। এ সময় পুরনো চেহারায় ফিরে যায় ছাত্রলীগ। আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের ওপর দফায় দফায় হামলার সময় আগ্নেয়াস্ত্র থেকে গুলি ছুড়তেও দেখা যায় ছাত্রলীগ কর্মীদের।

এক পর্যায়ে আতঙ্কিত শিক্ষার্থীরা সরে যাওয়ার জন্য ছুটোছুটি শুরু করলে পুলিশের সামনেই তাদের পেটায় ছাত্রলীগ কর্মীরা।

ছাত্রলীগের বিশ্ববিদ্যালয় শাখার সভাপতি মিজানুর রহমান রানার নেতৃত্বে এই হামলার ঘটনা ঘটে বলে অভিযোগ করেছেন আন্দোলনকারীরা।

শিক্ষার্থীরা জানান, পূর্ব ঘোষণা অনুযায়ী কয়েক হাজার শিক্ষার্থী সকাল সাড়ে ৭টার দিকে সব অ্যাকাডেমিক ভবনে তালা ঝুলিয়ে দিয়ে খন্ড খণ্ড মিছিল নিয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের টুকিটাকি চত্বরে জড়ো হতে থাকে।

সকাল ৯টার দিকে পুলিশ হঠাৎ তৎপর হয়ে ওঠে এবং দ্বিতীয় বিজ্ঞান ভবন ও তৃতীয় বিজ্ঞান ভবনের তালা ভেঙে দেয়। তারা রবীন্দ্র কলা ভবন ও শহীদুল্লাহ কলা ভবনের তালা ভাঙার চেষ্টা করলে আন্দোলনকারীদের সঙ্গে শুরু হয় বাকবিতণ্ডা।

এক পর্যায়ে পুলিশ শিক্ষার্থীদের ধাওয়া দিয়ে তাদের মাইক কেড়ে নেয়। এরপর প্রক্টর তারিকুল হাসান মিলন এসে পরিস্থিতি কিছুটা শান্ত করলে শিক্ষার্থীরা সকাল ১০টার দিকে প্রশাসনিক ভবনের কাছে জড়ো হন।

এর পরপরই ওই ভবনের পাশে দুটি হাতবোমা বিস্ফোরিত হয় বলে প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান।

বেলা পৌনে ১২টার দিকে মিজানুর রহমান রানার নেতৃত্বে ছাত্রলীগ কর্মীরা একটি মিছিল নিয়ে প্রশাসনিক ভবনের সামনে এলে পরপর কয়েকটি হাতবোমার বিস্ফোরণ ঘটানো হয়। এর পরপরই আন্দোলনকারীদের ওপর চড়াও হয় তারা।

 

Please follow and like us:
error
fb-share-icon
RSS
Follow by Email