রবিবার ২ অক্টোবর ২০২২ ১৭ই আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

ফুলবাড়ীর রাজারামপুর এলাকায় বালুর ট্রলি বন্ধ করাকে কেন্দ্র করে থানায় অভিযোগ

দিনাজপুর প্রতিনিধি: দিনাজপুরের ফুলবাড়ী উপজেলার রাজারামপুর এলাকায় শ্মশান ঘাটে লাইসেন্স বিহীন ট্রাক্টর চলাচলে বাঁধা দিলে হিন্দু সম্প্রদায়ের লোকজনকে প্রাণনাশের হুমকি দেওয়ায় থানায় অভিযোগ দায়ের। ঘটনার বিবরনে জানা যায়, উপজেলার ৭নং শিবনগর ইউনিয়নের রাজারামপুর এলাকায় ২০০৮ সালে বেলতলি ঘাট থেকে বালু উত্তোলনকালে সড়ক দুর্ঘটনায় বেশ কয়েকজন নিহত হলে ঐ এলাকার লোকজন গাড়ী চলাচলে বাধা দেন এবং বালু উত্তোলন বন্ধ করে দেবার কারণে ট্রলির শ্রমিকেরা ঐ এলাকার পুরুষ ও মহিলাদেরকে মারপিট করেন। এদিকে ঐ কারণে ইউপি চেয়ারম্যানের নিকট অভিযোগ করলে অফিস স্মারক নং- শিবনঃ/ইউ.পি/ফুল/দিন/২০০৮/৭৩ তারিখ: ১৯/১০/২০০৮ইং মূলে ট্রাক্টর ট্রলি চলাচলে নিষেধ এর আদেশ দেন। ২০০৮ সাল থেকে ট্রলি চলাচল বন্ধ থাকে। একটি মহলের কুপরামর্শে রাজারামপুর চৌধুরীপাড়া এলাকার মৃত নুরুন্নবি চৌধুরীর পুত্র মোঃ মামুনুর রহমান চৌধুরী বিপ্লব, মোঃ লিটন চৌধুরী (৩৮) ফুলবাড়ী দিনাজপুর শ্মশান ঘাট থেকে জোর পূর্বক বালুর ট্রলি চলাচল করবে মর্মে উল্লেখ্য ব্যক্তিদেরকে গত ১৪/০৪/২০১৪ইং তারিখে সকাল ৮.০০ ঘটিকার সময় লাইসেন্স বিহীন ট্রাক্টরের ট্রলি শ্মশান ঘাট রাস্তায় বালু তোলার উদ্দেশ্যে গেলে তারা বাঁধা দেয়। বাধা দিলে উল্লেখ্য ব্যক্তিদেরকে বিভিন্নভাবে ভয়-ভীতি ও প্রাণনাশের হুমকি দেন। শ্রী ফনি চন্দ্র মহমত্ম (৪৬), পিতা: মৃত মন্মথ, সাং- রাজারামপুর (গোয়ালপাড়া), সামিউল ইসলাম, পিতা: মোঃ শুকুর আলী, শ্রী মিলন, পিতা: মৃত বিজয়, শ্রী স্বপন, পিতা: বাবুরাম, শ্রী নারায়ণ, পিতা: মৃত শশধর, শ্রী অনিল চন্দ্র রায়, পিতা: মৃত সমবারু, শ্রী মানিক চন্দ্র রায়, পিতা: মৃত শশধর চন্দ্র রায়, শ্রী রবিন চন্দ্র রায়, পিতা: মৃত আশুতোষ মহন্ত। এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে তারা দলবদ্ধ হয়ে ফুলবাড়ী থানায় এসে শ্রী ফনি চন্দ্র মহমত্ম বাদী হয়ে ২ জনের বিরুদ্ধে একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।  ফুলবাড়ী থানার দায়িত্বপ্রাপ্ত অফিসার ইনচার্জ (তদন্ত) শেখ মোহাম্মদ গোলাম মোস্তফা জানান, তদন্ত সাপেক্ষে দ্রুত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Please follow and like us:
error
fb-share-icon
RSS
Follow by Email