সোমবার ১৬ মে ২০২২ ২রা জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

বীরগঞ্জে ১১ জনকে পাগড়ী পরিয়ে কোরানে হাফেজ স্বীকৃতি প্রদান

মোঃ আবেদ আলী, বীরগঞ্জ (দিনাজপুর) প্রতিনিধি : বীরগঞ্জে ১১ জনকে পাগড়ী পরিয়ে কোরানে হাফেজ স্বীকৃতি প্রদান করা হয়েছে ।

বীরগঞ্জ পৌরসভার নুরুল উলুম হাফিজিয়া মাদ্রাসা প্রাঙ্গনে মাদ্রাসা পরিচালনা কমিটির সভাপতি বীরমুক্তিযোদ্ধা অধ্যাপক আলহাজ মোঃ হামিদুল ইসলামের সভাপতিত্বে ১১ জনকে পাগড়ী পরিয়ে কোরানে হাফেজ স্বীকৃতি প্রদান করা হয়। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি টাঙ্গাইল জেলার মুফতি মোঃ মুইন উদ্দিন, বিশেষ অতিথি জয়পুর হাটের জেলার হাফেজ মাওঃ মোঃ জাহিদুল ইসলাম। অতিথি দ্বয় বীরগঞ্জ পৌরসভার শান্তিবাগ আবাশিক এলাকার মোঃ মকবুল হোসেনের ছেলে মোঃ উমর ফারক, একই এলাকার মোঃ তৈহিদুল ইসলামের ছেলে মোঃ আরাফাত রহমান তাসিন, উপজেলার নিজপাড়া ইউনিয়নের নিজপাড়া গ্রামের আব্দুল কাইয়ুমের ছেলে মোঃ নাজমুল ইসলাম, একই গ্রামের মোঃ রমিজ রমিজ উদ্দিনের ছেলে মোঃ জাকির হোসেন, পাল্টাপুর ইউনিয়নের ভোগডমা গ্রামের মাওঃ মছির উদ্দিনের ছেলে মোঃ মাহ্মুদুল হাসান, একই ইউনিয়নের পাল্টপুর গ্রামের মোঃ শরিফ উদ্দিনের ছেলে মোঃ রাসেল, একই ইউনিয়নের ছয়ঘটি গ্রামের মোঃ মহসিন আলীর মোঃ মাসুদ রানা, জগদল গ্রামের মোঃ হুসেন আলীর ছেলে মোঃ জয়নুল আবেদীন, কাহারোল উপজেলার রামপুর গ্রামের মোঃ বাবুল হোসেনের ছেলে মোঃ সেলিম সারয়ার, ঠাকুরগাওঁ জেলার রানীশংকৈল উপজেলার ভদ্রগামের মোঃ তোফাজ্জল হোসেনের ছেলে মোঃ শাহারিয়ার কবীর সবুজ ও একই জেলার হরিপুর উপজেলার মধুডাঙ্গী গ্রামের মোঃ তসির উদ্দিনের ছেলে মোঃ তছলিমুদ্দীনকে পাগড়ী পরিয়ে কোরানে হাফেজ স্বীকৃতি প্রদান করা হয়। অতিথিদ্বয় বাদ আছর নামাজ থেকে গভীর রাত পযর্ন্ত ইসলামী জ্বলসায় বক্তব্য প্রদান করেন। ইসলামী জ্বলসায় হাজার হাজার ধর্মপ্রান নারী-পুরুষ অংশ গ্রহন করেন। মাদ্রসার মহতামিম আলহাজ মাওঃ আবুল হাসেম জানান, ১৯৮৫ইং হতে এ প্রতিষ্ঠানে ৩০০জন কোরানে হাফেজকে পাগড়ী পরান হয়েছে। হাফেহ ও আলেম আবাশিক ২২০জন, অনাবশিক ১৪০জন সহ মোট ৩৬০জন শিার্থী রয়েছে। বার্ষিক সরকারী ক্যাপিটেশন গ্রান্ড ৫ল ২৬হাজার টাকা, গত বছরে আয় ৩৬ল ৮১হাজার ১৬৬ টাকা, একই সময়ে ব্যায় ৩৪ল ৯৪হাজার ৯৬টাকা।

Please follow and like us:
error
fb-share-icon
RSS
Follow by Email