শুক্রবার ১৯ এপ্রিল ২০২৪ ৫ই বৈশাখ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

মহানবীকে ব্যঙ্গ করা পত্রিকা অফিসে হামলা : নিহত ১২

মহানবী হযরত মোহাম্মদকে (স) ব্যঙ্গ করে চরমভাবে বিতর্কিত হওয়া প্যারিসের ব্যঙ্গাত্মক দৈনিক ‘শার্লি এব্দ’-র কার্যালয়ে মুখোশধারী আততায়ীদের হামলায় ১২ জন প্রাণ হারিয়েছেন।

বুধবার সকালে এ ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় ফ্রান্স সর্বোচ্চ সতর্কতা ঘোষণা করেছে এবং বিভিন্ন উপাসনার স্থান, বিপণী, মিডিয়া কার্যালয় এবং পরিবহণে নিরাপত্তা বাড়িয়েছে। আততায়ীদের এ যাবৎ গ্রেপ্তার করা সম্ভব হয়নি। এটা ছিল গত ২০ বছরে ফ্রান্সে সবচেয়ে মারাত্মক সন্ত্রাসবাদী আক্রমণ। ফরাসি প্রেসিডেন্ট ফ্রঁসোয়া ওলঁদ স্বয়ং এ আক্রমণকে ‘নিঃসন্দেহে একটি সন্ত্রাসবাদী আক্রমণ’ বলে অভিহিত করেছেন। সাম্প্রতিক কয়েক সপ্তাহে নাকি একাধিক আক্রমণ ব্যর্থ করা সম্ভব হয়েছে, বলেও জানান তিনি।
ফ্রান্স সর্বোচ্চ সতর্কতা ঘোষণা করেছে এবং বিভিন্ন উপাসনার স্থান, বিপণী, মিডিয়া কার্যালয় এবং পরিবহণে নিরাপত্তা বাড়িয়েছে। প্রত্যক্ষদর্শীদের বিবরণ অনুযায়ী একাধিক মুখোশধারী স্বয়ংক্রিয় আগ্নেয়াস্ত্র হাতে নিয়ে প্যারিসের কেন্দ্রীয় এলাকায় ‘শার্লি এব্দ’র অফিসে ঢোকে এবং ৩ তলার নিউজরুমে গিয়ে এলোপাথাড়ি গুলি চালাতে শুরু করে। পুলিশের খবর অনুযায়ী, পরে তারা একটি অপেক্ষমান গাড়িতে করে পালায় এবং তারও পরে আবার গাড়ি বদলি করে অপর একটি চোরাই গাড়িতে চড়ে পলায়ন করে।
সরকারি ফ্রান্স টেলিভিশনের ভিডিও-য় দেখা গেছে, একটি রাস্তার মোড়ে দুজন কালো পোশাক পরা বন্দুকধারী রাস্তা বরাবর গুলি চালাচ্ছে। গুলির আওয়াজের মধ্যে একবার আল্লাহু আকবর ধ্বনিও শোনা গেছে। ইসলামিক স্টেট সন্ত্রাস গোষ্ঠী ফ্রান্সকে আক্রমণ করা হুমকি দিয়েছে। এ আক্রমণের মাত্র কয়েক মিনিট আগে শার্লি এব্দ পত্রিকার তরফ থেকে ব্যঙ্গ করে আইসিস নেতার একটি কার্টুন টুইট করা হয়। কার্টুনের শিরোনাম ছিল- ফ্রান্সে এখনও কোনো আক্রমণ নেই।
কার্টুনে এক আইসিস যোদ্ধা বলছে, একটু ধৈর্য ধরো- নববর্ষের কামনা পূরণের জন্য আমাদের হাতে জানুয়ারির শেষ অবধি সময় আছে। এর আগে হযরত মোহাম্মদ (সা.)-এর ব্যাঙ্গাত্মক কার্টুন ছাপার জন্য এ পত্রিকাকে একাধিকবার হুমকির মুখে পড়তে হয়েছিল – ২০১১ সালে পত্রিকার অফিসে বোমাও ছোড়া হয়েছিল।
জার্মান চ্যান্সেলর আঞ্জেলা ম্যার্কেল এ ঘৃণ্য আক্রমণের নিন্দা করেছেন। মার্কিন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামার মুখপাত্র জানিয়েছেন, মার্কিন কর্মকর্তারা ফরাসি কর্মকর্তাদের সঙ্গে নিকট যোগাযোগ রেখে চলেছেন। ইউরোপীয় ইউনিয়নের সর্বোচ্চ কর্মকর্তারা ইউরোপে সংবাদপত্রের স্বাধীনতা রক্ষার জন্য সর্বসাধ্য করার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন। ন্যাটো প্রধান ইয়েন্স স্টল্টেনব্যার্গ বলেছেন, সামরিক জোট যৌথভাবে সন্ত্রাসবাদের বিরুদ্ধে সংগ্রাম করবে।

Spread the love