বুধবার ১ ফেব্রুয়ারী ২০২৩ ১৮ই মাঘ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

যারা মানুষের কল্যাণে লাইব্রেরী প্রতিষ্ঠা করেন তারা কেয়ামত পর্যন্ত নেকি পেতে থাকবেন

দিনাজপুর প্রতিনিধি : খাজা নাজিমউদ্দীন মুসলিম হল ও লাইব্রেরীর উদ্যোগে মিলাদ, দোয়া ও ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল অনুষ্ঠিত মাহফিলে খাজা নাজিমউদ্দীন মুসলিম হল ও লাইব্রেরীর প্রতিষ্ঠাতা মরহুম হেমায়েত আলীসহ এর সাথে যুক্ত ব্যক্তিবর্গ, দেশ ও জাতি এবং মুসলিম দুনিয়ার উন্নতি ও সমৃদ্ধি কামনা করে দোয়া করা হয়।

দোয়া মাহফিল পুর্ব আলোচনা সভায় বয়ান করেন মুন্সিপাড়া জামে মসজিদের পেশ ইমাম আলহাজ্ব মাওলানা সোহরাব হোসাইন। তিনি মহান রাববুল আল আমিনের সন্তুষ্টি লাভের জন্য ছদকা জারিয়ামূলক কাজ করতে হয়। লা্ইব্রেরী প্রতিষ্ঠার মাধ্যমে মরহুম হেমায়েত আলী সাহেব সেই ধরনের একটি কাজ করেছেন। যারা মানুষের কল্যাণের জন্য স্কুল, কলেজ, মসজিদ, মাদ্রাসা, লাইব্রেরী প্রতিষ্ঠা করে থাকেন তারা আসলে ছদকা জারিয়া মূলক কাজ করে থাকেন। এ ধরনের প্রতিষ্ঠান যতদিন দুনিয়াতে থাকবে এবং মানুষের কল্যাণে ব্যবহ্ত হবে ততদিন তার নেকি চলতেই থাকবে। এইসব প্রতিষ্ঠান প্রতিষ্ঠার সাথে জড়িত ব্যক্তিগণ সেই নেকি কেয়ামত পর্যমত্ম পেতে থাকবেন।

মিলাদ মাহফিলে খাজা নাজিমউদ্দীন মুসলিম হল ও লাইব্রেরীর সাধারণ সম্পাদক সফিকুল হক ছুটু জ্ঞাণ অন্নেষণে লাইব্রেরীতে আসার জন্য সর্বসাধারণের প্রতি আহবান জানান। তিনি বলেন, দায়িত্ব গ্রহণের পর বর্তমান কমিটি ১লাখ টাকার নতুন বই কিনেছে এবং ৪লাখ টাকা ব্যয় করে দিনাজপুর মিউজিয়ামের উন্নয়ন কাজ করেছে। তিনি মিউজিয়াম পরিদর্শন করার জন্যও সকলের প্রতি আহবান জানান।

ইফতার মাহফিলে নাট্য ব্যক্তিত্ব কাজী বোরহান, লাইর্রেরীর কর্মকর্তা,কর্মচারী, সমাজের বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গ, সাহিত্যিক ও সাংস্কৃতিক কর্মী এবং মরহুম হেমায়েত আলীর পরিবারের সদস্যবর্গ উপস্থিত ছিলেন।