রবিবার ১৪ অগাস্ট ২০২২ ৩০শে শ্রাবণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

শিক্ষক লাঞ্ছনাঃরংপুরে মানব বন্ধন বিক্ষোভ

রংপুর জেলা প্রতিনিধিঃ নড়াইলের মির্জাপুর ইউনাইটেড কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ স্বপন কুমার বিশ্বাসকে লাঞ্ছনা ও ঢাকা সাভারে শিক্ষক উৎপল কুমার কে হত্যার প্রতিবাদে সমাজতান্ত্রিক ছাত্রফ্রন্ট নগর  বৃহস্পতিবার সকাল ১১টায় রংপুর নগরীর প্রেসক্লাবের সামনে ও কারমাইকেল কলেজ ক্যাম্পাসে কলেজ শাখার পৃথক পৃথক সমাবেশ ও মানববন্ধন কর্মসূচি অনুষ্ঠিত হয়।নগর শাখার সমাবেশে  নগর সভাপতি যুগেশ ত্রিপুরার সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক উত্তম কুমারের সঞ্চালনায় উক্ত সমাবেশে বক্তব্য রাখেন নগর কমিটির সদস্য ও সংগঠক মোতাওয়াক্কীল বিল্লাহ্ শাহ্, মঞ্জুরুল ইসলাম নিলয়, সীমান্ত এছাড়াও সংহতি জানিয়ে বক্তব্য রাখেন সমাজতান্ত্রিক ছাত্রফ্রন্ট  বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয় শাখার সভাপতি রিনা মুরমু, কারমাইকেল কলেজ শাখার সভাপতি মৌসুমি আক্তার মৌ ও বিজ্ঞান আন্দোলন মঞ্চের সভাপতি তূর্য শুভ্র।বক্তারা বলেন বর্তমান শিক্ষাঙ্গন শিক্ষক ও শিক্ষার্থীর উভয়ের জন্যই অনিরাপদ ও ঝুকিপূর্ণ হয়েছে। শিক্ষক বরাবরই বিভিন্নভাবে লাঞ্ছিত হচ্ছে যা সাম্প্রতিক সময়ে সবচেয়ে ভীতিকর ও জাতির জন্য হুমকিস্বরূপ দাঁড়িয়েছে।বক্তারা অভিযোগ করে বলেন, সাভারে শিক্ষক হত্যার অপরাধে আটক হওয়া জিতুকে কিশোর হিসেবে মামলায় অভিযুক্ত করে মূলত তাকে বাঁচানোর পায়তারা করছে প্রশাসন। এছাড়াও নড়াইলের ঘটনায় অভিযুক্ত সবাইকে এখনো আইনের আওতায় নিয়ে না আসায় বক্তারা ক্ষোভ প্রকাশ করেন।সমাবেশ থেকে বক্তারা  শিক্ষাঙ্গনে অপরাজনীতি, দুর্বৃত্তায়ন ও সাম্প্রদায়িক মদদদাতাদের চিহ্নিত করে অবিলম্বে বিচারের আওতায় এনে শাস্তির দাবী জানান।একই দাবী নিয়ে কারমাইকেল কলেজ ক্যাম্পাসে দুপুর ১২টায় পৃথক সমাবেশ সভাপতিত্ব করেন কলেজ শাখার সভাপতি মৌসুমি আক্তার মৌ ও সঞ্চালনা কলেজ শাখার সদস্য নাজমীন নাহার।উক্ত সমাবেশে সংহতি জানিয়ে বক্তব্য রাখেন ইতিহাস বিভাগের শিক্ষক নাজির হোসেন।শিক্ষক নাজির হোসেন বলেন- আজকে পুরো শিক্ষক সমাজ লজ্জিত এবং ভীত, আমারই সহকর্মী নিপিড়ীত হওয়ায় তাঁর পাশে শিক্ষক সমাজ যেভাবে দাঁড়ানো দরকার তা উল্লেখযোগ্য নয়।পাশাপাশি তিনি সকল শিক্ষক ও শিক্ষার্থী এবং প্রগতিশীল সমাজের সকলের এই নিপীড়ন রুখে দেয়ার জন্য উদাত্ত আহবান জানান।বার্তা প্রেরকনড়াইলের মির্জাপুর ইউনাইটেড কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ স্বপন কুমার বিশ্বাসকে লাঞ্ছনা ও ঢাকা সাভারে শিক্ষক উৎপল কুমার কে হত্যার প্রতিবাদে সমাজতান্ত্রিক ছাত্রফ্রন্ট নগর  বৃহস্পতিবার সকাল ১১টায় রংপুর নগরীর প্রেসক্লাবের সামনে ও কারমাইকেল কলেজ ক্যাম্পাসে কলেজ শাখার পৃথক পৃথক সমাবেশ ও মানববন্ধন কর্মসূচি অনুষ্ঠিত হয়।নগর শাখার সমাবেশে  নগর সভাপতি যুগেশ ত্রিপুরার সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক উত্তম কুমারের সঞ্চালনায় উক্ত সমাবেশে বক্তব্য রাখেন নগর কমিটির সদস্য ও সংগঠক মোতাওয়াক্কীল বিল্লাহ্ শাহ্, মঞ্জুরুল ইসলাম নিলয়, সীমান্ত এছাড়াও সংহতি জানিয়ে বক্তব্য রাখেন সমাজতান্ত্রিক ছাত্রফ্রন্ট  বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয় শাখার সভাপতি রিনা মুরমু, কারমাইকেল কলেজ শাখার সভাপতি মৌসুমি আক্তার মৌ ও বিজ্ঞান আন্দোলন মঞ্চের সভাপতি তূর্য শুভ্র।বক্তারা বলেন বর্তমান শিক্ষাঙ্গন শিক্ষক ও শিক্ষার্থীর উভয়ের জন্যই অনিরাপদ ও ঝুকিপূর্ণ হয়েছে। শিক্ষক বরাবরই বিভিন্নভাবে লাঞ্ছিত হচ্ছে যা সাম্প্রতিক সময়ে সবচেয়ে ভীতিকর ও জাতির জন্য হুমকিস্বরূপ দাঁড়িয়েছে।বক্তারা অভিযোগ করে বলেন, সাভারে শিক্ষক হত্যার অপরাধে আটক হওয়া জিতুকে কিশোর হিসেবে মামলায় অভিযুক্ত করে মূলত তাকে বাঁচানোর পায়তারা করছে প্রশাসন। এছাড়াও নড়াইলের ঘটনায় অভিযুক্ত সবাইকে এখনো আইনের আওতায় নিয়ে না আসায় বক্তারা ক্ষোভ প্রকাশ করেন।সমাবেশ থেকে বক্তারা  শিক্ষাঙ্গনে অপরাজনীতি, দুর্বৃত্তায়ন ও সাম্প্রদায়িক মদদদাতাদের চিহ্নিত করে অবিলম্বে বিচারের আওতায় এনে শাস্তির দাবী জানান।একই দাবী নিয়ে কারমাইকেল কলেজ ক্যাম্পাসে দুপুর ১২টায় পৃথক সমাবেশ সভাপতিত্ব করেন কলেজ শাখার সভাপতি মৌসুমি আক্তার মৌ ও সঞ্চালনা কলেজ শাখার সদস্য নাজমীন নাহার।উক্ত সমাবেশে সংহতি জানিয়ে বক্তব্য রাখেন ইতিহাস বিভাগের শিক্ষক নাজির হোসেন।শিক্ষক নাজির হোসেন বলেন- আজকে পুরো শিক্ষক সমাজ লজ্জিত এবং ভীত, আমারই সহকর্মী নিপিড়ীত হওয়ায় তাঁর পাশে শিক্ষক সমাজ যেভাবে দাঁড়ানো দরকার তা উল্লেখযোগ্য নয়।পাশাপাশি তিনি সকল শিক্ষক ও শিক্ষার্থী এবং প্রগতিশীল সমাজের সকলের এই নিপীড়ন রুখে দেয়ার জন্য উদাত্ত আহবান জানান।

Please follow and like us:
error
fb-share-icon
RSS
Follow by Email