বুধবার ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ ১৫ই ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

সরকার লুটপাট ও দুর্নীতির ধারাকেই প্রলম্বিত করতে চাইছে

বিএনপির যুগ্ম-মহাসচিব বরকত উল্লাহ বুলু বলেন, সরকার হত্যা, গুম, অপহরণ, জুলুম-নির্যাতন ও গ্রেফতারের মাধ্যমে সৃষ্টি করা অস্বাভাবিক পরিস্থিতি অব্যাহত রেখে তথাকথিত উন্নয়নের ধারার নামে তাদের অবৈধ শাসন এবং লুটপাট ও দুর্নীতির ধারাকেই প্রলম্বিত করতে চাইছে।’

মঙ্গলবার গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে তিনি এ সব কথা বলেন।

তিনি বলেন, ‘দেশের প্রকৃত চিত্র সংবাদমাধ্যমে তুলে ধরার সুযোগও সংকুচিত করে ফেলা হয়েছে। পাশাপাশি বিরোধীদলের বিরুদ্ধে তারা (ক্ষমতাসীন) একটানা মিথ্যাচার করে চলেছে। সীমাহীন অপকর্ম ও রাষ্ট্রীয় সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে শান্তিপূর্ণ প্রতিবাদের সকল পথ তারা রুদ্ধ করেছে।’

বুলু বলেন, ‘বিরোধী দলের স্বাভাবিক রাজনৈতিক ও সাংগঠনিক তৎপরতা পরিচালনার সুযোগ নেই দাবি করে বিএনপি নেতৃত্বাধীন ২০ দলীয় জোট বলেছে, ‘এ অবস্থায় দেশব্যাপী অবরোধের শান্তিপূর্ণ কর্মসূচি চালিয়ে যাওয়া ছাড়া আমাদের সামনে আর কোনো পথ খোলা রাখা হয়নি।’

বিএনপির এ নেতা বলেন, ‘দলের যুগ্ম-মহাসচিব সাবেক প্রতিমন্ত্রী সালাহউদ্দিন আহমেদকে গ্রেফতার করে নিয়ে যাওয়ার ৭ দিন অতিবাহিত হলেও এখন পর্যন্ত তাকে মুক্তি দেওয়া কিংবা আদালতে হাজির করা হয়নি। অতি সম্প্রতি জাতীয়তাবাদী ছাত্রদলের কেন্দ্রীয় সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক আনিসুর রহমান তালুকদার খোকনসহ দেশব্যাপী আরও অনেক নেতাকর্মীর ক্ষেত্রেও একই ধরনের ঘটনা ঘটানো হয়েছে।’

তিনি বলেন, ‘সালাহউদ্দিনকে গ্রেফতারের কথা অস্বীকার করে সরকারের পক্ষ থেকে উচ্চ আদালতে সাজানো গল্প ফাঁদা হয়েছে এবং শীর্ষ পর্যায় থেকে উৎকট ব্যঙ্গ-বিদ্রূপ করা হয়েছে। এতে তার পরিবারের ও আমাদের উৎকণ্ঠা তীব্র হচ্ছে।’

বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব বরকত উল্লাহ বুলু বলেন, ‘সালাহউদ্দিনের বিরুদ্ধে কোনো অভিযোগ থাকলে তাকে গ্রেফতার করে আদালতে উপস্থাপন করার কথা আমরা বলেছি। কিন্তু তার মতো একজন গুরুত্বপূর্ণ রাজনৈতিক নেতাকে উধাও করে ফেলার মতো ধৃষ্টতাকে কোনোক্রমেই মেনে নেওয়া যায় না। এটি অনিরাপদ এক অসভ্য পরিবেশেই কেবল সম্ভব।’

Spread the love