রবিবার ২ অক্টোবর ২০২২ ১৭ই আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

হাবিপ্রবিতে পুলিশ ছাত্রলীগ-ছাত্রশিবিরের মধ্যে ত্রিমুখী সংঘর্ষ

Dinajpur-11-bpদিনাজপুর প্রতিনিধি : দিনাজপুর হাজী দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে পুলিশ -ছাত্রলীগ ও ছাত্রশিবিরের সংঘর্ষে উভয় পক্ষের অন্ত্যত ১০ শিক্ষার্থী আহত হয়েছে।

আজ  বুধবার সকাল ১১টায় দিকে  হাবিপ্রবিতে ক্যাম্পেসে এই  সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

সকালে ছাত্র শিবিরের নেতাকর্মীরা মিছিল নিয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রবেশ করে প্রশাসনিক ভবন, নুর হোসেন হোস্টেল, নবনির্মিত  ড.এম. ওয়াজেদ ভবনসহ বেশ  কয়েক ভবন ও হাবিপ্রবির বাসে অগ্নি সংযোগ হামলা ও ভাংচুর চালায় শিবির কর্মীরা । শিবির হামলা ও ভাংচুর চালিয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক ভবনসহ কয়েক ভবনের ব্যাপক ক্ষতিসাধন করে। শিবিরের হামলায় বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের ১০ নেতাকর্মী আহত হয়।

দিনাজপুর কোতোয়ালী থানার ওসি আব্দুল কাদের জিলানী জানান, সকাল থেকে স্থানীয় কিছু এলাকাবাসীর সহায়তায় ছাত্রশিবির নেতাকর্মীরা বিশ্ববিদ্যালয়ে হামলার জন্য প্রস্ত্ততি নেয়। এ খবর পেয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্ররাও সমবেত হয়। সকাল ১১টায় হামলা চালায় ছাত্রশিবিরের নেতাকর্মীরা। হামলা চালিয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়াজেদ আলী ভবনের দরজা-জানালা ও বেশ কয়েকটি গাড়ি ভাঙচুর করে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে পরিস্থিতি স্বাভাবিক করতে  ৩২ রাউন্ড সর্টগানের গুলি ও ৮ রাউন্ড টিয়ার সেল নিক্ষেপ করেছে তিনি জানিয়েছেন । এতে উভয় পক্ষের সাধারন ছাত্রসহ ১০ জন আহত হয়। পুলিশ-ছাত্রলীগ ছাত্রশিবিরের ত্রিমূখী সংঘর্ষ বিশ্ববিদ্যালয় এলাকায় ছড়িয়ে পড়লে অবস্থার আরো  অবনতি হলে  পুলিশ বিজিবিকে খবর দিলে ২ প্লাটুন বিজিবির সদস্য ঘটনাস্থলে পৌঁছলে পরিস্থিতি স্বভাবিক হয়।

এদিকে বাশেরহাট এলাকায় স্থানীয় এক আওয়ামী লীগ নেতা বসাক রায়ের বাড়ীতে হামলা, ভাংচুর ও অগ্নিসংযোগ করেছে বলে হরতাল ও অবরোধকারীরা ।

তবে ছাত্র শিবির জানিয়েছে, বুধবার সকাল ১০টার দিকে ছাত্রশিবিরের নেতাকর্মীরা বিশ্ববিদ্যালয় এলাকা বাশেঁর হাটে হরতালের সমর্থনে একটি মিছিল বের করলে ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা মিছিলে হামলা চালায়। শিবির তাদের প্রতিহত করার চেষ্টা করলে তাদের সাথে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটে। পরে ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা বিশ্ববিদ্যালয় এলাকায় প্রবেশ করে একাডেমিক ভবন, প্রশাসনিক ভবনসহ কয়েকটি ভবনে হামলায় ও ভাংচুর করে। ছাত্রলীগের হামলায় শিবিরের ৪ নেতাকর্মী আহত হয়েছে।

বর্তমানে বিশ্ববিদ্যালয় ও এর আশপাশের উত্তেজনা বিরাজ করছে। ক্যাম্পাসে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করেছে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ।

Please follow and like us:
error
fb-share-icon
RSS
Follow by Email